শাজাহান খানকে সংসদে বেশি কথা বলতে দেয়ায় প্রতিবাদ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৪৬ পিএম, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

সাবেক নৌপরিবহন মন্ত্রী ও সরকারদলীয় সংসদ সদস্য শাজাহান খানকে সংসদে নির্দিষ্ট সময়ের চেয়ে বেশি কথা বলতে দেয়ায় প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ ও জাতীয় পার্টির (জাপা) মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা। একাদশ জাতীয় সংসদের প্রথম অধিবেশনে রোববার (১৭ ফেব্রুয়ারি) এ ঘটনা ঘটে।

জাতীয় সংসদে ৭১ বিধিতে কথা বলার সুযোগ পান শাজাহান খান। সংসদের কার্যাপ্রণালি বিধি অনুযায়ী এ ধারায় দুই মিনিটের বেশি কেউ কথা বলতে পারেন না। কিন্তু সংসদের বৈঠকের সভাপতিত্বে থাকা ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া তাকে কথা বলার জন্য বেশি সময় দেন। এ সময় বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ প্রতিবাদ করেন।

শাজাহান খান সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতা সংগ্রামের ঐতিহাসিক ভাষণের স্থান সংরক্ষণের বিষয় নিয়ে বক্তব্য দেন। এ ধারায় বক্তব্য দেয়ার সময় দুই মিনিট শেষ হলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে তার মাইক বন্ধ হয়ে যায়। এ সময় ডেপুটি স্পিকার তাকে আরও এক মিনিট সময় বাড়িয়ে দেন। ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বি মিয়া বলেন, বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে কথা বলেছেন বিধায় আপনাকে দুই মিনিটের বেশি কথা বলার সুযোগ দিয়েছি।

এ সময় বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ মসিউর রহমান রাঙ্গা মাইক ছাড়াই অতিরিক্ত সময় কথা বলতে দেয়ার বিষয়ে আপত্তি জানান। আপত্তি জানানোর পর ডেপুটি স্পিকার বলেন, উনি (শাজাহান খান) বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে কথা বলেছেন বিধায় তাকে দুই মিনিটের বেশি কথা বলতে দিয়েছি। আপনি (রাঙ্গা) কি বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে কথা বলা নিয়ে আপত্তি করছেন? বঙ্গবন্ধুর কারণে আপনি চিফ হুইপ হতে পেরেছেন। তা না হলে আপনি চিফ হুইপ হতে পারতেন না।

পরে মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেন, আমি বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে কথা বলার জন্য আপত্তি করিনি। আমি বলতে চেয়েছি, দুই মিনিটের বেশি কথা বলা নিয়ে। আমারও ৭১ বিধিতে নোটিশ আছে। সময়ের কারণে এর আগে আমি কথা বলতে পারিনি। সেই বিষয়টি বলতে চেয়েছি।

এইচএস/আরএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :