পায়ে হেঁটে উঠে কফিনে করে নামলেন বিমানযাত্রী সালেহা

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:০০ পিএম, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ঢাকায় পায়ে হেঁটে বিমানে উঠলেও কফিন হয়ে লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দরে নামলেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত বৃটিশ নাগরিক শেখ সালেহা। বুধবার বিমানের বিজি-০০১ ফ্লাইটে চড়ে লন্ডনের উদ্দেশে রওনা দেন শেখ সালেহা। পথে আকাশেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন তিনি।

বিমানের ফ্লাইট সার্ভিসের একটি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, বুধবার বেলা ১১টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে সালেহাকে বহনকারী বিমানের বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ফ্লাইটটি লন্ডনের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করে। ফ্লাইটের ককপিটে ছিলেন ক্যাপ্টেন ইসহাক, ক্যাপ্টেন হাসনাইন ও ক্যাপ্টেন জাকির।

তারা জানান, ফ্লাইটটি রাশিয়ার আকাশে প্রবেশের পর সালেহা অসুস্থতা অনুভব করেন। এরপর ক্রুরা প্রয়োজনীয় সেবা দিতে শুরু করেন। একপর্যায়ে তিনি অনেকটা সংজ্ঞাহীন হয়ে পড়েন এবং সঙ্গে সঙ্গে তাকে অক্সিজেন মাস্ক পরানো হয়।

এ সময় যাত্রীদের মধ্যে থাকা এক চিকিৎসক জানান, সালেহাকে বাঁচাতে হলে জরুরি ভিত্তিতে হাসপাতালে নেয়া প্রয়োজন। অবস্থার বেগতিক দেখে ফ্লাইটের ক্যাপ্টেন আজারবাইজানের বাকু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল-এটিসির সঙ্গে যোগাযোগ করে সেখানে জরুরি অবতরণ করেন।

বাকু বিমানবন্দরে জরুরি চিকিৎসা কেন্দ্রে এক ঘণ্টার বেশি সময় চিকিৎসা দিয়ে তার শ্বাস-প্রশ্বাস পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে, তিনি আজারবাইজানের আকাশেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

বিমানের লন্ডন স্টেশনের একজন কর্মকর্তা জাগো নিউজকে বলেন, ফ্লাইটটি বিকেল ৪টায় হিথ্রোতে অবতরণের কথা থাকলেও সালেহার মৃত্যুজনিত কারণে পাঁচ ঘণ্টা বিলম্বের পর স্থানীয় সময় রাত ৯টায় হিথ্রোর রানওয়ে স্পর্শ করে।

আরএম/বিএ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]