নিউজিল্যান্ডে মিশন খোলা হবে : পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

কূটনৈতিক প্রতিবেদক কূটনৈতিক প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৪৮ পিএম, ১৬ মার্চ ২০১৯

নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশের মিশন খোলা হবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম।

শনিবার (১৬ মার্চ) বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড স্ট্রাটেজিক স্ট্রাডিজ (বিস) মিলনায়তনে ‘বৈশ্বিক কূটনীতিতে বাংলাদেশের ৫০ বছর’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। কূটনৈতিক প্রতিবেদকদের সংগঠন ডিকাবের ২১ বছর পূর্তি উপলক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

তিনি বলেন, নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে দুই মসজিদে হামলায় হতাহতদের মধ্যে বাংলাদেশিও রয়েছেন। কিন্তু তাদের সঠিক সংখ্যা নিয়ে গত দুদিনে বিভ্রান্তি তৈরি হয়েছে। মূলত নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশের কোনো মিশন না থাকায় এ সমস্যা তৈরি হয়েছে।

প্রসঙ্গত, নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশের কোনো মিশন না থাকায় দেশটির রাজধানী অকল্যান্ডে একজন অনারারি কনস্যুলার রয়েছেন। তার মাধ্যমে এবং অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশনের মাধ্যমে নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে যোগাযোগ করছে বাংলাদেশ।

শাহরিয়ার আলম বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের গত ১০ বছরে বিশ্বের প্রায় ১৭-১৮টি স্থানে বাংলাদেশের নতুন মিশন চালু করে। আগামী পাঁচ বছরে আরও অন্তত ১০টি দেশে এবং শহরে মিশন খোলার পরিকল্পনা রয়েছে। এদের তিন-চারটি ইতিমধ্যে পাইপলাইনে রয়েছে। তার মধ্যে নিউজিল্যান্ড অন্যতম।

তিনি জানান, আমরা সিডনিতে মিশন খুলেছি। কানাডার টরোন্টোতেও আমাদের নিজস্ব কনস্যুলেট ভবন আগামী ২ এপ্রিল উদ্বোধন হতে যাচ্ছে।

এছাড়া যেসব দেশে ভাড়া ভবনে দূতাবাসের কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে সেখানে আগামীতে বাংলাদেশ ভবন নির্মাণ করা হবে বলে জানান তিনি।

ইতিমধ্যে জাপানের টোকিওতে বাংলাদেশের নিজস্ব দূতাবাস ভবন তৈরি করা হয়েছে জানিয়ে শাহরিয়ার আলম বলেন, ওখানকার কূটনৈতিক এলাকায় যতগুলো ভবন রয়েছে বাংলাদেশের দূতাবাসই সব থেকে বেশি দৃষ্টিনন্দন।

তিনি বলেন, আফ্রিকা ও লাতিন আমেরিকায় আমাদের কার্যক্রমকে সম্প্রসারিত করার লক্ষ্যে কাজ করছি।

প্রতিমন্ত্রী জানান, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের গুরুত্ব অনুসারে তৃতীয় কোনো ভাষার প্রতি গুরুত্ব দিচ্ছে বাংলাদেশ। কূটনীতিকদের ভাষা দক্ষতা তৈরি ও যেসব দেশে বাংলাদেশ মিশনের কার্যক্রম নেই সেসব দেশের সঙ্গে সম্পর্ক বাড়াতে এ উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

জেপি/এএইচ/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :