অন্যরকম প্রতিবাদ ইউসুফের

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:১৪ পিএম, ২০ মার্চ ২০১৯

নিরাপদ সড়কের দাবিতে ফের রাজধানীর সড়কে অবস্থান নিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। সুপ্রভাত পরিবহনের বাসচাপায় বিইউপির ছাত্র আবরার আহমেদের হত্যার প্রতিবাদে বুধবার সকাল থেকে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা সড়কে অবস্থান নেনে।

প্রথমে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার যমুনা ফিউচার পার্কের সামনের সড়কে অবস্থান নিলেও একে একে শাহবাগ, ধানমন্ডি, ফার্মগেট, উত্তরা, পুরান ঢাকার তাঁতীবাজার, জনসন রোড ও রায় সাহেব বাজারের রাস্তায় নেমে পড়েন শিক্ষার্থীরা।

রাজধানীর তাঁতীবাজারে কথা হয় কবি নজরুল কলেজের শিক্ষার্থী ইউসুফের সঙ্গে। তার বুকে লেখা, ভাই এর রক্ত কেন? এবং পিঠে লেখা, বিচার চাই।

তিনি বলেন, আমাদের ৮ দফা দাবি আছে। এটা মেনে নেয়ার কথা বলা হলেও বাস্তবায়ন হচ্ছে না। পথচারীদের জন্য সব চেয়ে নিরাপদ স্থান জেব্রা ক্রসিংয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক বড় ভাইকে একটা গাড়ি এসে মেরে দিয়ে যায়। জ্রেবা ক্রসিংয়ের মতো নিরাপদ জায়গায় যদি একজন মানুষের নিরাপত্তা না থাকে তাহলে বুঝুন আমরা কতটুকু নিরাপদে আছি। আমাদের নিরাপত্তা হান্ড্রেড পারসেন্ট নিশ্চিত করার পরই আমরা রাস্তা থেকে সরব। তার আগে নয়।

এদিকে সকাল থেকে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার যমুনা ফিউচার পার্কের সামনে অবস্থান নেয় সুপ্রভাত পরিবহনের বাসের চাপায় নিহত বিইউপির ছাত্র আবরার আহমেদের সহপাঠীসহ বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীরা বাংলাদেশের পতাকা নিয়ে অবস্থান নিয়েছেন। তারা স্লোগান দিচ্ছেন-‘অ্যাকশন অ্যাকশন ডাইরেক্ট অ্যাকশন’।

বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা আট দফা দাবি জানিয়েছেন। দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে- বাসচালকের শাস্তি, নতুন বাসচালকেরা যেন যথাযথ নিয়মে ড্রাইভিং লাইসেন্স পান, গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় জেব্রা ক্রসিংয়ের ব্যবহার, জেব্রা ক্রসিংয়ের সামনে ক্লোজড সার্কিট (সিসি) ক্যামেরা স্থাপন, প্রগতি সরণির সামনে পদচারী-সেতু স্থাপন।

গতকাল মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) সকাল ৭টার দিকে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের আওতাধীন প্রগতি সরণি এলাকায় সু-প্রভাত (ঢাকা মেট্রো-ব-১১-৪১৩৫) বাসের চাপায় বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালস (বিইউপি)-এর শিক্ষার্থী আবরার আহম্মেদ চৌধুরী নিহত হয়। পরে সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন শুরু করেন শিক্ষার্থীরা। এ সময় তারা ৮ দফা দাবি ঘোষণা করেন এবং বুধবার (২০ মার্চ) সকাল ৮টা পর্যন্ত অবরোধ কর্মসূচি স্থগিত করেন।

জেএ/এনডিএস/এমকেএইচ

টাইমলাইন  

আপনার মতামত লিখুন :