মাদকের পরিণতির কথা জানালে সহিংসতা কমে আসবে : স্পিকার

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:১৯ পিএম, ১৮ এপ্রিল ২০১৯

জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এমপি বলেছেন, মাদকের ভয়াবহ পরিণতি সম্পর্কে যুব সমাজকে সচেতন করতে পারলে সমাজের সহিংসতা কমে আসবে। নারীদেরকে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত করতে পারলে প্রত্যেক নারী পারিবারিক ও সামাজিক কল্যাণে আরও মনোযোগী হতে পারবে।

বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউএনএফপিএ প্রতিনিধি ড. আসা টরকেলশন সংসদে স্পিকারের কার্যালয়ে সৌজন্য সাক্ষাৎ করলে তিনি এসব কথা বলেন। সাক্ষাৎকালে তারা বাংলাদেশের বাল্যবিবাহ প্রতিরোধ, মাতৃমৃত্যু ও শিশুমৃত্যু হার হ্রাস, যুব উন্নয়ন, জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ ও জেন্ডার সমতা এবং নারীর অর্থনৈতিক ক্ষমতায়ন নিয়ে আলোচনা করেন।

তিনি বিলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। পাশাপাশি তিনি মানবসম্পদের উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। জেন্ডার ভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধে ইতোমধ্যে সরকার কাজ শুরু করেছে। তৃণমূল পর্যায়ে ইয়ুথ ক্লাব প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে জনসচেতনতা তথা জনসম্পৃক্ততা বৃদ্ধির মাধ্যমে জেন্ডার ভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ করা সম্ভব।

ড. আসা টরকেলশন জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ ও জেন্ডার সমতায় বাংলাদেশের অগ্রগতিতে সন্তোষ প্রকাশ করেন। বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে ইউএনএফপিএ-এর অব্যাহত সহযোগিতার আশ্বাস দেন। এ সময় তিনি নারী ক্ষমতায়ন ও যুব উন্নয়নে স্পিকারের উদ্ভাবনী ধারনার প্রশংসা করেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে মাতৃমৃত্যুর হার হ্রাস, শিশুস্বাস্থ্য সুরক্ষা এবং বাল্যবিবাহ প্রতিরোধসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে যথেষ্ট অগ্রগতি হয়েছে।

সৌজন্য সাক্ষাৎকালে ইউএনএফপিএ-এর প্রোগ্রাম ম্যানেজার ও বিএপিপিডিএর প্রকল্প পরিচালকসহ সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এইচএস/আরএস/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :