আইজিপির প্রশংসা করে দুদক চেয়ারম্যানের চিঠি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৫৩ পিএম, ২৩ জুলাই ২০১৯

সম্প্রতি কনস্টেবল নিয়োগ পরীক্ষা স্বচ্ছ ও দুর্নীতিমুক্তভাবে সম্পন্ন করায় বাংলাদেশ পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

সম্প্রতি তিনি আইজিপিকে এ সংক্রান্ত একটি চিঠি দেন।

চিঠিতে দুদক চেয়ারম্যান আইজিপিকে উদ্দেশ করে লিখেছেন, ‘আপনার সুযোগ্য নেতৃত্বে অতি সম্প্রতি দেশব্যাপী পুলিশ বিভাগের একটি বৃহৎ নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। সরকারের যে কোনো বিভাগে দীর্ঘমেয়াদি দক্ষ জনবল কাঠামো অর্জনের নিমিত্তে সুষ্ঠু এবং নিরপেক্ষ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে জনবল নিয়োগের বিকল্প নেই। আপনার বিভাগের সাম্প্রতিক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় বিভিন্ন মহলে ইতিমধ্যে প্রশংসিত হয়েছে। বিভিন্ন বিভাগ এবং জেলার পুলিশ বিভাগের বিভিন্ন পদবির কর্মকর্তারা আপনার নির্দেশনা মোতাবেক স্বচ্ছতার সাথে এই গুরুদায়িত্ব পালন করার বিষয়টি আমরা সাধুবাদ জানাই। এই বৃহৎ কর্মযজ্ঞে আপনার সহযোগী সব স্তরের কর্মকর্তার প্রতি আপনার মাধ্যমে ধন্যবাদ জানাই।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘পুলিশে নিয়োগ পদ্ধতিতে পরিবর্তন না এনে তা কীভাবে স্বচ্ছ করা যায় তার ওপরই এবার জোর দেয়া হয়েছে মর্মে জানা গেছে। একই সঙ্গে নিয়োগপ্রার্থীসহ সাধারণ মানুষকে পরামর্শ দেয়া হয়, তারা অসাধু ব্যক্তিদের প্রতারণার শিকার না হয়। বিভিন্ন গণমাধ্যমে জনসচেতনতা নির্দেশনামূলক বিজ্ঞপ্তি প্রচার করা হয়, পুলিশের কেন্দ্রীয়, ইউনিট পর্যায়ে ওয়েবসাইট, ফেসবুক পেজে নানাবিধ প্রচারণা চালানো হয়। স্থানীয় পর্যায়ে লিফলেট বিতরণের মাধ্যমে বক্তব্য প্রচার করা হয়। নিয়োগ প্রক্রিয়া করার জন্য আপনাদের এই প্রচেষ্টা অন্যান্য নিয়োগদানকারী কর্তৃপক্ষের কাছে অনুকরণীয় হতে পারে।’

‘দেশের সার্বিক উন্নয়ন এবং দুর্নীতি প্রতিরোধে আপনার বিভাগও দুর্নীতি দমন কমিশনের সাথে একাত্ম হয়ে কাজ করে যাচ্ছে। সাম্প্রতিক নিয়োগের মতো অন্যান্য কাজকর্মেও আপনার বিভাগ বিগত দিনের ন্যায় সততার সাথে কাজ করে যাবে এই প্রত্যাশা করি। আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি সুখী সমৃদ্ধ এবং একটি উন্নত বাংলাদেশ গঠনের লক্ষ্যে আমরা পাশাপাশি কাজ করে যাবো।’

চিঠি প্রাপ্তির বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সদর দফতরের সহকারী মহাপরিদর্শক (এআইজি) সোহেল রানা।

তিনি জানান, কনস্টেবল নিয়োগ পরীক্ষায় শতভাগ সচ্ছল করতে যা যা প্রয়োজন, সব ব্যবস্থা নেয়া হয়েছিল। এ কারণে দুর্নীতিমুক্তভাবে কনস্টেবল নিয়োগ পরীক্ষা সম্পন্ন করা গেছে। নিয়োগপ্রক্রিয়া স্বচ্ছ করতে এবার ১০০ জন পুলিশ কর্মকর্তাকে বদলি ও স্ট্যান্ডরিলিজ করা হয়েছে। অনিয়ম করায় টাঙ্গাইলের এক পুলিশকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

সম্প্রতি শেষ হওয়া কনস্টেবল নিয়োগ পরীক্ষায় সারাদেশ থেকে ৬ হাজার ৮০০ পুরুষ এবং ২ হাজার ৮৮০ নারীসহ ৯ হাজার ৬৮০ তরুণ-তরুণী নিয়োগ পান।

এআর/জেএইচ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :