পরিবেশ বিপন্ন করে কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৩১ পিএম, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

দেশে বিদ্যুতের চাহিদা অপরিহার্য। কিন্তু তার মানে এই নয় যে জলবায়ু ও পরিবেশ বিপন্ন করে কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপন করতে হবে। সারা বিশ্বের পরিবেশবাদীদের আজ একটাই দাবি, কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধ করে নবায়নযোগ্য জ্বালানির মাধ্যমে বিদ্যুৎ উৎপাদিত হোক।

শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সবুজ আন্দোলন নামক একটি সংগঠন আয়োজিত এক সমাবেশে বক্তারা এসব কথা বলেন।

বক্তারা বলেন, বর্তমান সরকার যে চারটি কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনের চিন্তা করছে, তার মধ্যে রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাজ চলমান রয়েছে। আমরা চাই এই বিদ্যুৎকেন্দ্রও বন্ধ করে জলবায়ু সমস্যা মোকাবিলা এবং কার্বন নিঃসরণ কমাবে এই ধরনের নবায়নযোগ্য বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র প্রতিষ্ঠা করা হোক।

এ সময় আয়োজকদের পক্ষ থেকে বেশকিছু দাবি তুলে ধরা হয়। দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে- অনতিবিলম্বে সারা পৃথিবীর কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধ করা, ২০৩০ সালের মধ্যে অর্ধেক এবং ২০৫০ সালের মধ্যে বিশ্বব্যাপী কার্বন নিঃসরণ শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনার ব্যবস্থা গ্রহণ। বাংলাদেশের সমুদ্র উপকূল ও বড় নদীর পাড়ে নেদারল্যান্ডের মতো বেড়িবাঁধ নির্মাণ এবং মিঠা পানি সংরক্ষণের জন্য নদী ও দিঘি খনন করতে অর্থ বরাদ্দ দিতে হবে। সুন্দরবনের আশেপাশের সব ধরনের স্থাপনা উচ্ছেদ করা এবং আগামীতে যেন কোনো স্থাপনা নির্মাণ করতে না পারে তার জন্য আন্তর্জাতিকভাবে আইন পাস করতে হবে।

সবুজ আন্দোলনের কার্যনির্বাহী কমিটির সভাপতি অ্যাডভোকেট আবু বক্কর সিদ্দিকের সভাপতিত্বে সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের চেয়ারম্যান বাপ্পি সরদার, মহাসচিব অধ্যাপক এম মিজানুর রহমান প্রমুখ।

এএস/এমএসএইচ/এমএস