‘ঢাকা কখনোই ২ কোটি মানুষের ভার বহনে সক্ষম নয়’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:১৮ পিএম, ০৬ অক্টোবর ২০১৯

আধুনিক ও উন্নত ঢাকা গড়তে গতানুগতিক নগর পরিকল্পনার পরিবর্তে যুগোপযোগী ও নাগরিকবান্ধব পরিকল্পনা করতে প্রকৌশলীদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম।

রোববার (৬ অক্টোবর) সন্ধ্যায় রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব প্ল্যানার্স (বিআইপি) আয়োজিত ‘প্ল্যানার্স ন্যাশনাল কনভেনশন-২০১৯’ এর সমাপনী অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান।

মেয়র বলেন, ঢাকা কখনোই প্রায় দুই কোটি মানুষের ভার বহনে সক্ষম নয়। মানুষ কিসের আশায় শান্তির গ্রাম ছেড়ে ঢাকায় অমানবিক জীবন যাপন করতে আসেন সেটি খুঁজে বের করতে হবে। মানুষকে তার নীড়ে ফিরতে হবে, সব নাগরিক সুবিধা এখন গ্রামে পৌঁছে দিতে নিরলস কাজ করছেন প্রধানমন্ত্রী। মানুষকে কর্মমুখী করতে হবে, গ্রামে নিজ বাড়ি থেকে কাজ করতে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। সরকারের গুচ্ছগ্রাম প্রকল্প, একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পসহ অন্য প্রকল্পের সুফল জনগণকে জানাতে হবে। তাহলেই রাজধানীতে অতিরিক্ত মানুষের চাপ কমবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ইউজিসির সাবেক চেয়ারম্যান, বিশিষ্ট নগর পরিকল্পনাবিদ, অধ্যাপক নজরুল ইসলাম বলেন, নগর পরিকল্পানার ধারণা পরিবর্তন হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর ভিশন ‘গ্রাম হবে শহর’র কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, গ্রাম হবে শহর ভিশনে প্রধানমন্ত্রীর নগর নিয়ে আধুনিক চিন্তাধারার প্রকাশ পেয়েছে। তিনি অবকাঠামোসহ নাগরিক সুযোগ সুবিধা গ্রামে নিশ্চিত করার কথা বলেছেন কিন্তু কোনোভাবেই ইট-কাঠের অপরিকল্পিত শহর যাতে না হয় সে বিষয়ে সবাইকে সচেতন থাকতে হবে। শান্তির নীড় ছোট ছোট গ্রাম যেন শান্তির নীড় হয়েই থাকে সেটি নিশ্চিত করতে হবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ড. হোসেন জিল্লুর রহমান বলেন, নগর পরিকল্পনার ক্ষেত্রে আমাদের স্টার্টিং পয়েন্ট ও গোল কোনোটিই নির্দিষ্ট থাকছে না। বৈশ্বিক নানা বিষয় ও জলবায়ু পরিবর্তনের সঙ্গে প্রতিনিয়ত আমাদের লক্ষ্য পরিবর্তন হচ্ছে, প্ল্যানার্সদেরও নতুন নতুন চ্যালেঞ্জ তৈরি হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, যদিও দেশে আরবান এবং রিজিওনাল প্ল্যানিং বলা হয়, এমনকি বিশ্ববিদ্যালয়ে এ নামে বিভাগও রয়েছে কিন্তু দুঃখজনক হলো দেশে রিজিওনাল প্ল্যানিং এখনো হচ্ছে না, সবাই শুধু আরবান নিয়েই কাজ করছে। নগর পরিকল্পনাবিদদের রিজিওনাল প্ল্যানিং নিয়ে কাজ করার ওপর গুরুত্ব দিতে হবে।

বিআইপির সভাপতি এ কে এম আবুল কালামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বিআইপির সাধারণ সম্পাদক ড. আদিল মোহাম্মদ খান, সহসভাপতি অধ্যাপক আকতার মাহমুদ ও ফজলে রেজা সুমন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এএস/এএইচ/জেআইএম