কারাগারে অনিককে মারধরের খবর সত্য নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৫৫ পিএম, ১৫ অক্টোবর ২০১৯

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় গ্রেফতার অনিক সরকারকে কারাগারে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত বা আঘাতপ্রাপ্ত করা হয়নি বলে দাবি করেছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বুয়েট ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অনিক কারাবন্দিদের হাতে মারধরের শিকার হয়েছেন বলে কয়েকটি গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার এক বিজ্ঞপ্তিতে এমন দাবি করল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত এ সংক্রান্ত সংবাদ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যথাযথ কর্তৃপক্ষ ও কারা কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষিত হয়েছে জানিয়ে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ বিষয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যথাযথ কর্তৃপক্ষ ও কারা অধিদফতরের কারা মহাপরিদর্শক ব্রিডেগিয়ার জেনারেল এ কে এম মোস্তফা কামাল পাশার বক্তব্য হলো, ‘অনিক সরকার গ্রেফতার হওয়ার পর ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে পৌঁছলে অনিক সরকারকে যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণ করে কারা সেলে রাখা হয়। কারা অভ্যন্তরে প্রবেশের পর অনিক সরকার কারারক্ষী বা কারাবন্দি কারও দ্বারাই আঘাতপ্রাপ্ত বা শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত হননি। মিডিয়ায় প্রচারিত এ সংবাদটি সত্য নয়।

গত ৬ অক্টোবর রাতে বুয়েটের তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের (১৭তম ব্যাচ) ছাত্র আবরার ফাহাদকে শেরেবাংলা হলের রুম থেকে ডেকে নিয়ে পিটিয়ে হত্যা করেন বুয়েট ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এ ঘটনায় মঙ্গলবার পর্যন্ত ছাত্রলীগের নেতাসহ (বহিষ্কৃত) ২০ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আসামিদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী অনিক সরকারই আবরারকে সবচেয়ে বেশি মারধর করেছেন।

আরএমএম/জেএইচ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]