মন্ত্রণালয়-অধিদফতরের জন্য ৯৪ লাখের বেশি দামি গাড়ি নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৪৩ পিএম, ১৭ নভেম্বর ২০১৯

অধিকাংশ ক্ষেত্রে দাম বাড়িয়ে মন্ত্রণালয় ও অধিদফতরের জন্য নতুন করে যানবাহনের মূল্য নির্ধারণ করেছে সরকার। এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন রোববার জারি করেছে অর্থ মন্ত্রণালয়ের ব্যয় ব্যবস্থাপনা অধিশাখা।

নতুন প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী জিপ গাড়ির জন্য দুই ক্যাটাগরিতে মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে। প্রথমটি হলো- (ক) জিপ গাড়ি অনূর্ধ্ব ২৭০০ সিসির (ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) ৯৪ লাখ টাকা। দ্বিতীয়ত (খ) জিপ গাড়ি অনূর্ধ্ব ২৭০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) ৫৭ লাখ টাকা। যানবাহনের মধ্যে সবচেয়ে কম মূল্য হচ্ছে মোটরসাইকেলের। ১২৫ সিসি মোটরসাইকেলের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১ লাখ ৪০ হাজার টাকা।

এ ছাড়া কার অনূর্ধ্ব ১৬০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৩৫ লাখ টাকা। পিক-আপ (সিঙ্গেল কেবিন) অনূর্ধ্ব ২৫০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ২৮ লাখ টাকা। পিক-আপ (ডাবল কেবিন) অনূর্ধ্ব ২৫০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) জন ৪৯ লাখ টাকা মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে।

মাইক্রোবাস অনূর্ধ্ব ২৭০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৪৪ লাখ টাকা। অ্যাম্বুলেন্স অনূর্ধ্ব ২৭০০ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) ৪৪ লাখ টাকা, কোস্টার বা মিনিবাস (এসি) অনূর্ধ্ব ৪২০০ সিসির (রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট, ট্যাক্সসহ) মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৬৯ লাখ টাকা।

বাস বড় (ননএসি) অনূর্ধ্ব ৫৮৮৩ সিসির ( রেজিস্ট্রেশন ব্যতীত) মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৪২ লাখ ২৯ হাজার টাকা, ট্রাকের (৫ টন- রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট ও ট্যাক্সসহ) জন্য ৩৯ লাখ, তিন টন ট্রাকের (রেজিস্ট্রেশন, ভ্যাট ও ট্যাক্সসহ) জন্য ৩১ লাখ ৭৫ হাজার টাকা মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে যানবাহন ক্রয়ে অনুমতি ও অর্থ বরাদ্দের ক্ষেত্রে নতুন মূল্য অনুসরণ করতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে মন্ত্রণালয়, বিভাগ, অধিদফতর, পরিদফতরগুলোকে।

এর আগে ২০১৬ সালের অক্টোবর মাসে মন্ত্রণালয় ও সংস্থার জন্য সরকার নতুন করে যানবাহনের মূল্য নির্ধারণ করে দেয়। ওই সময় জিপ গাড়ি অনূর্ধ্ব ২৭০০ সিসির মূল্য নির্ধারণ করা হয় ৭০ লাখ ৩০ হাজার টাকা। যানবাহনের মধ্যে সবচেয়ে কম মূল্য ছিল মোটরসাইকেলের। ১২৫ সিসি মোটরসাইকেলের দাম নির্ধারণ করা হয়েছিল ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা।

রেজিস্ট্রেশন ও সিএনজি কনভারশন ফি ছাড়া জিপ গাড়ির মূল্য ধরা হয়েছিল ৫৫ লাখ ২০ হাজার টাকা, ২৭০০ সিসির ঊর্ধ্বে নয় অ্যাম্বুলেন্সের ৪৪ লাখ, মাইক্রোবাস ৪০ লাখ, পিকআপ ভ্যান (ডাবল কেবিন) ৪৬ লাখ ৫০ হাজার, পিকআপ (সিঙ্গেল কেবিন) ২৮ লাখ, ১৬০০ সিসির কার ৩১ লাখ, মিনিবাস ১৮ লাখ টাকা এবং বাসের (বড়) মূল্য ৩৮ লাখ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছিল।

এমইউএইচ/জেডএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]