চাকরির নামে প্রতারণা, তিন প্রতিষ্ঠান থেকে গ্রেফতার ১৪ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:১৩ পিএম, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০

চাকরি দেয়ার নামে চাকরিপ্রার্থীদের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে রাজধানীর মিরপুর ও মোহাম্মদপুরের তিনটি প্রতিষ্ঠান থেকে ১৪ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। এছাড়া ৪৪ জন চাকরিপ্রার্থীকেও উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- মামুন হোসেন বিল্লাল (৩৬), উজ্জ্বল মিয়া (২৫), শরিফুল ইসলাম (২২), সোহাগ খান (২২), আমানুল ইসলাম (২২), জাকির হোসেন (২৪), মো. রায়হান (২০), ফোরকান উদ্দিন (৩০), মনিরুল ইসলাম (২৪), রাহাত হাওলাদার (২৪) মো. আহাদ (২৫), আবু রায়হান (২২), সাহিবুর রহমান (২২) ও আলিফ হোসেন (২০)।

rab.jpg

তাদের কাছ থেকে ২৪টি ভর্তি ফরম, ১০টি ভিজিটিং কার্ডের বক্স, ৭০ পাতার চাকরির নিয়োগ ফরম, সাতটি ভুয়া নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, নগদ ৯৭ হাজার টাকা, পাঁচটি রেজিস্টার, একটি নোটবুক, একটি খাতা, ৫২ জন চাকরিপ্রার্থীর জীবনবৃত্তান্ত, আটটি সিল, দুটি পরিচয়পত্র, পাঁচটি ভুয়া পোস্টিং ফরম জব্দ করা হয়।

র‌্যাব-৪ এর সহকারী পরিচালক (অপস) সহকারী পুলিশ সুপার জিয়াউর রহমান চৌধুরী জানান, সুনির্দিষ্ট অভিযোগ ও গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পল্লবীর দিকরা সিকিউরিটি অ্যান্ড লজিস্টিক সার্ভিসেস লিমিটেড, কাজীপাড়ার আনোয়ারা লজিস্টিক অ্যান্ড সিকিউরিটি সার্ভিসেস লিমিটেড ও আদাবরের আনোয়ার লজিস্টিক অ্যান্ড সিকিউরিটি সার্ভিসেস লিমিটেডে অভিযান চালানো হয়।

rab.jpg

রোববার (২০ সেপ্টেম্বর) দুপুর আড়াইটা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত অভিযান পরিচালনা করে এই তিনটি প্রতিষ্ঠান থেকে ১৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়। এছাড়া ৪৪ জন ভুক্তভোগী চাকরিপ্রার্থীকে উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় অফিস ভাড়া করে দেশের মধ্যশিক্ষিত বেকার ও নিরীহ যুবকদের চাকরি দেয়ার নাম করে ভুয়া নিয়োগপত্র দিয়ে দীর্ঘদিন থেকে প্রতারকচক্রটি লাখ লাখ টাকা আত্মসাৎ করেছে।

rab.jpg

জিজ্ঞাসাবাদে আরও জানা যায়, এই প্রতারকচক্রের মূলহোতা মামুন হোসেন বিল্লাল। তার তত্ত্বাবধানে তিনটি ভুয়া প্রতিষ্ঠান পরিচালিত হতো। মামুন ছাড়া পলাতক আরও চার-পাঁচজন এই প্রতারণার কাজে জড়িত। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

জেইউ/বিএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]