অনুমোদনহীন কারখানায় নকল ঔষধ তৈরি, ৩ জনের কারাদণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:০৬ পিএম, ২২ অক্টোবর ২০২০

ক্যামিস্ট, হেকিমবিহীন ও সরকারি অনুমোদন না নিয়ে নকল ইউনানী ঔষধ তৈরি করায় রাজধানীর তুরাগের ন্যাচারাল রিসার্চ ল্যাবরেটরি নামে একটি প্রতিষ্ঠানের মালিকসহ তিনজনকে কারাদণ্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় ওই কারখানা থেকে যৌন শক্তিবর্ধকসহ ১৪-১৫ ধরনের প্রায় ১৫ লাখ টাকার ইউনানী ঔষধ জব্দ শেষে ধ্বংস করা হয়।

তুরাগ থানার বামনারটেক এলাকায় নকল ইউনানি ঔষধ তৈরির ওই কারখানার সন্ধান পাওয়ার পর সেখানে বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) দুপুরে অভিযান চালায় র‌্যাব-৪ এর একটি দল। সেখানে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আক্তারুজ্জামান।

jagonews24

তিনি জাগো নিউজকে বলেন, ঔষধ প্রশাসন থেকে কোনো ধরনের অনুমোদন ছাড়া প্রতিষ্ঠানটি তাদের কারখানায় যৌন শক্তিবর্ধক ভিটামিন ও মিনারেলসহ ১৪-১৫ রকমের ঔষধ তৈরি করে আসছিল। প্রতিষ্ঠানটিতে কোনো মাননিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থাও ছিল না। নেই কোনো ক্যামিস্ট ও হেকিম। একটি ওষুধ তৈরি কারখানার যে ধরনের মান ও পরিবেশ থাকা দরকার তার কোনো বালাই ছিল না। অত্যন্ত মানহীন এবং নোংরা পরিবেশে অননুমোদিতভাবে ঔষধ তৈরি করে আসছিল তারা। এজন্য তারা অন্য প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্সসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্রের ক্ষেত্রেও জালিয়াতি করেছে।

অভিযান শেষে ঔষধ আইন, ১৯৪০ এর ১৮ বি/২৭ ধারায় কারখানার মালিক এস এম গোলাম সাকলায়েনকে (৩৮) এক বছর বিনাশ্রম কারাদণ্ড, প্রোডাকশন ম্যানেজার অমিয়ম নন্দিকে (৫২) তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং মার্কেটিং ম্যানেজার আজিজুল হাকিমকে (৫০) এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

জেইউ/এমএসএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]