‘এখন এইডস প্রতিরোধই বড় হাতিয়ার’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:০০ পিএম, ০১ ডিসেম্বর ২০২০

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এবিএম খুরশীদ আলম বলেছেন, ‘এইডস এমন একটি রোগ যে রোগের টিকা এখনও আমরা সফলভাবে অবিষ্কার করতে পারিনি। কাজেই প্রতিরোধটাই এখানে সবচেয়ে বড় হাতিয়ার। এই প্রতিরোধের জন্য বাংলাদেশ সরকারের অনেকগুলো প্রোগ্রাম আছে। যেগুলো স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনার মাধ্যমে বাস্তবায়িত হচ্ছে। তার মধ্যে সফল একটি প্রোগ্রাম হচ্ছে, এইডস আক্রান্ত মায়েদের নিরাপদ শিশু প্রসব, যার মধ্যে এইচআইভি থাকবে না।’

মঙ্গলবার (১ নভেম্বর) বিশ্ব এইডস দিবস উপলক্ষে জাতীয় শিল্পকলা একাডেমিতে এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

খুরশীদ আলম আরও বলেন, ‘করোনার কারণে অনেকগুলো টেস্ট করা সম্ভব হয়নি। যার কারণে সঠিক পরিসংখ্যান আমরা দিতে পারিনি। আরও কিছু সঠিক পরিসংখ্যান আমাদের দরকার ছিল, যেমন আমাদের দেশে বর্তমানে কতজন লোক এইডস আক্রান্ত আছে, আমরা তা জানি না।’

আলোচনা সভার সমাপনী বক্তব্যে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব আব্দুল মান্নান বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী ঘোষণা দিয়েছেন ২০৩০ সালের মধ্যে এইচআইভি এইডস মুক্ত বাংলাদেশ গড়ার। আমি মনে করি আমরা যদি আমাদের দায়িত্ব পালন করতে পারি তাহলে দশ বছরের আগেই এইচআইভি এইডস মুক্ত বাংলাদেশ ঘোষণা করা যাবে এবং এটা সম্ভব।’

সভায় এইডস দিবস বিষয়ক মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (এমবিডিসি) ও লাইন ডাইরেক্টর অধ্যাপক ডা. শামিউল ইসলাম। এ সময় অন্যদের মধ্যে অতিরিক্ত সচিব মোস্তফা কামাল, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধিসহ বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশনের (বিএমএ) সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এওয়াইএইচ/এসএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]