পণ্য বিক্রিতে অনিয়ম : ৪ প্রতিষ্ঠানকে মামলা-জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:২৬ পিএম, ০৪ মার্চ ২০২১

পণ্য বিক্রিসহ বিভিন্ন অনিয়মে দুটি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা ও দুটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করেছে মান সংস্থা বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই)।

বৃহস্পতিবার ঢাকা মহানগরীর বারিধারা এলাকা ও সাভার আমিন বাজারে স্কোয়াড অভিযান পরিচালনা করে সংস্থাটি। দুটি পৃথক মোবাইল কোর্ট এসব প্রতিষ্ঠান ও সংশ্লিষ্টদের মামলা ও জরিমানা করে।

এর মধ্যে ঢাকা মহানগরীর বারিধারা ডিওএইচএস এলাকায় অভিযানে অনন্যা সুপার শপ-এ ব্যবহৃত ৪০ কেজি ধারণক্ষমতার ডিজিটাল স্কেলের ভেরিফিকেশন সনদ না থাকায় এবং পিক অ্যান্ড পে সুপার মার্কেট বিভিন্ন পণ্যের গায়ে অস্থায়ীভাবে মোড়ক ব্যবহারকরণ ও পণ্যের ওজন, মূল্য, উৎপাদন এবং মেয়াদোত্তীর্ণের তারিখ উল্লেখ না থাকায় প্রতিষ্ঠান দুটির বিরুদ্ধে ‘ওজন ও পরিমাপ মানদণ্ড আইন-২০১৮’ অনুযায়ী মামলা করা হয়েছে।

অপর একটি টিম নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নাফিসা নাজ নীরার নেতৃত্বে ঢাকা মহানগরীর সাভার এলাকায় অভিযান চালানো হয়। সেখানে হাজী আমিন সুইটস অ্যান্ড বেকারি বিএসটিআই হতে বাধ্যতামূলক সিএম লাইসেন্স গ্রহণ ব্যতীত অবৈধভাবে পণ্যের গায়ে বিএসটিআইয়ের মান চিহ্ন ব্যবহার করতে দেখা যায়। এমন অবৈধভাবে পাউরুটি, বিস্কুট ও কেক তৈরি, বিক্রয় ও বাজারজাত করায় বিএসটিআই আইন-২০১৮ এর ১৫/২৭ ধারা মোতাবেক ওই প্রতিষ্ঠানকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।

একই এলাকায় আনিস ফুড প্রোডাক্টসও বিএসটিআই হতে বাধ্যতামূলক সিএম লাইসেন্স গ্রহণ ব্যতীত অবৈধভাবে পণ্যের গায়ে বিএসটিআইয়ের মান চিহ্ন ব্যবহার করে আসছিল। একইভাবে পাউরুটি তৈরি, বিক্রয় ও বাজারজাত করায় বিএসটিআই আইনে ওই প্রতিষ্ঠানকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।

এনএইচ/এমএসএইচ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]