রমনায় নারী চিকিৎসকের মরদেহ উদ্ধার

ঢামেক প্রতিবেদক
ঢামেক প্রতিবেদক ঢামেক প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:২৯ পিএম, ১৭ মে ২০২১ | আপডেট: ০৮:৩১ পিএম, ১৭ মে ২০২১

রাজধানীর রমনা থানার নিউ ইস্কাটনের একটি বাসা থেকে সুপ্রিয়া কর্মকার (৩৫) নামে এক নারী চিকিৎসকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

সোমবার (১৭ মে) দুপুরে নিউ ইস্কাটন রোডের ১১২ নম্বর বাসা থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে রমনা থানা পুলিশ।

ভোলার লালমোহন উপজেলার কর্তারহাট গ্রামের সুধীর কর্মকারের মেয়ে সুপ্রিয়া কর্মকার। তিনি ১১২ নম্বর নিউ ইস্কাটন রোড এলাকার ওই বাসায় ভাড়া থাকতেন।

রমনা থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) নারায়ণ সরকার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, খবর পেয়ে দুপুরের দিকে এক নারী চিকিৎসকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

সুপ্রিয়া কর্মকারের ভাই সুতনু কর্মকার জানান, ‘গতকাল রোববার রাতে খাওয়া-দাওয়া শেষে রাত সাড়ে দশটায় তার কক্ষে ঘুমিয়ে পড়েন সুপ্রিয়া। আজ বেলা এগারোটা পর্যন্ত যখন ঘুম থেকে না ওঠায় তাকে অনেক ডাকাডাকি করি। কিন্তু কোনো সাড়া-শব্দ না পেয়ে, দরজা খুলে ভেতরে ঢুকে দেখি, তিনি সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গালায় ওড়না পেঁচানো অবস্থায় ঝুলে আছেন। পরে পুলিশকে খবর দিলে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢামেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়। কী কারণে তিনি আত্মহত্যা করেছেন সে বিষয়ে কিছু বলতে পারব না।’

তিনি আরও জানান, সুপ্রিয়া কর্মকার বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে কর্মরত ছিলেন। বর্তমানে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) এফসিপিএস কোর্স করছিলেন তিনি।

এমএসএইচ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]