চসিকের সাবেক কাউন্সিলরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক চট্টগ্রাম
প্রকাশিত: ০৬:২৪ পিএম, ১৪ জুন ২০২১
মোহাম্মদ ইসমাইল বালি। ফাইল ছবি

অবৈধ উপায়ে রোহিঙ্গা নাগরিককে জাতীয় সনদপত্র (এনআইডি) প্রদান এবং পাসপোর্ট আবেদনে সহায়তার দায়ে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) সাবেক কাউন্সিলর মোহাম্মদ ইসমাইল বালিসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

সোমবার (১৪ জুন) দুদক জেলা সমন্বিত কার্যালয়-২ এর উপ-সহকারী পরিচালক মো. শরীফ উদ্দিন বাদী হয়ে মামলাটি করেন।

মামলার অন্য আসামিরা হলেন- ৩৪ নম্বর পাথরঘাটা ওয়ার্ডের জন্ম নিবন্ধন সনদ সহকারী সুবর্ণ দত্ত, মো. সিরাজুল ইসলাম, রোহিঙ্গা নাগরিক মোহাম্মদ ইসমাইল, অহিদা ও মেহেরজান।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, আসামি মোহাম্মদ ইসমাইল বালি তার দায়িত্ব পালনকালীন রোহিঙ্গা নাগরিক অহিদাকে জাতীয় সনদপত্র প্রদান করেছেন এবং তার পাসপোর্ট আবেদনের সত্যায়িতও করেছেন। এ কাজে তাকে সহযোগিতা করেছেন ওই ওয়ার্ডের জন্ম নিবন্ধন সনদ সহকারী সুবর্ণ দত্ত।

এজাহারে আরও বলা হয়েছে, অহিদার ‘পিতা’ হিসেবে দেখানো হয়েছে আরেক রোহিঙ্গা নাগরিক মোহাম্মদ ইসমাইলকে এবং ‘মাতা’ হিসেবে দেখানো হয়েছে মেহেরজানকে। কিন্তু তারা অহিদার প্রকৃত বাবা-মা নন। এছাড়া অহিদার পাসপোর্ট আবেদনপত্রে দেখা গেছে, জরুরি প্রয়োজনে যোগাযোগের জন্য নামের জায়গায় মো. সিরাজুল ইসলাম ও তার নম্বর দেয়া হয়েছে। সিরাজুল ইসলাম অহিদার চাচা বলে সম্পর্কে উল্লেখ করা হয়েছে। কিন্তু তিনি অহিদার প্রকৃত চাচা নন।

এ বিষয়ে দুদক কর্মকর্তা মো. শরীফ উদ্দিন জাগো নিউজকে বলেন, মামলার পাঁচ আসামি পরস্পরের যোগাসাজশে অবৈধভাবে রোহিঙ্গা নাগরিককে জাতীয় সনদপত্র প্রদান ও পাসপোর্ট করতে সহযোগিতা করে লাভবান হয়েছেন। আরেক আসামি রোহিঙ্গা নাগরিক অবৈধ সুবিধা নিয়ে লাভবান হয়েছেন। তাই তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

মিজানুর রহমান/এমএসএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]