অঞ্চলভিত্তিক নৌযানচালক পরীক্ষা চালুর দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৩৮ পিএম, ২১ জুন ২০২১ | আপডেট: ০৮:৫১ পিএম, ২১ জুন ২০২১
ফাইল ছবি

সিলেট (ভৈরব), নারায়ণগঞ্জ এবং দেশের বিভিন্ন জোনে দিনের বেলায় চলাচল করা ছোট ছোট যাত্রীবাহী নৌযানে পুনরায় অঞ্চলভিত্তিক তৃতীয় শ্রেণির চালক পরীক্ষা চালুর দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-চলাচল (যাব) সংস্থা।

সংগঠনটির দাবি, চালক সংকটের কারণে বহু লঞ্চ চলাচল বন্ধ হওয়ার পথে। এতে যাত্রীদের ভোগান্তি চরমে। আর্থিক লোকসানে পড়ে মালিকদের পথে বসার উপক্রম হয়েছে। তাই দ্রুততম সময়ে চালক নিয়োগ দিতে জোনভিত্তিক পরীক্ষা চালু করতে হবে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-চলাচল (যাব) সংস্থা সূত্র জানায়, ওই দাবি আদায়ে গত ১৬ জুন নৌ-পরিবহন অধিদফতরের মহাপরিচালক বরাবর আবেদন করেছে সংস্থাটির সিলেট জোনের (ভৈরব) সিনিয়র সহ-সভাপতি জহিরুল হক খান।

ওই আবেদনে বলা হয়, যাত্রীবাহী নৌযান সংখ্যার তুলনায় তৃতীয় শ্রেণির চালক অনেক কম। ফলে বহুবার পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি দিয়েও চালক পাওয়া যাচ্ছে না। এজন্য অঞ্চলভিত্তিক পরীক্ষাটি পুনরায় চালু করতে হবে। এছাড়া সুকানী গ্রিজের ডিসপেনশনের মেয়াদ তৃতীয় শ্রেণির চালক না পাওয়া পর্যন্ত সার্ভে ও লঞ্চ চলাচলের জন্য ছয় মাসের পরিবর্তে নিয়মনীতি মেনে এক বছর করতে হবে।

নৌ-পরিবহন অধিদফতরের মহাপরিচালক পরিচালক মোহাম্মদ বদরুল হাসান লিটন জাগো নিউজকে বলেন, আমরা নিয়মিত চালক পরীক্ষা নিচ্ছি। আজ সোমবারও (২১ জুন) শতাধিক লোকের পরীক্ষা নেয়া হয়েছে। যেসব জোনে এখনও পরীক্ষা হয়নি, ক্রমান্বয়ে সেখানেও পরীক্ষা নেয়া হবে। তবে অঞ্চলভিত্তিক পরীক্ষা নেয়ার ক্ষেত্রে কিছু জটিলতা আছে, সেগুলো সমাধান করা হবে।

এমএমএ/এআরএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]