মোবাইল না দেয়ায় গলায় ফাঁস দিয়ে কিশোরীর আত্মহত্যা

ঢামেক প্রতিবেদক
ঢামেক প্রতিবেদক ঢামেক প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৫৭ এএম, ০২ আগস্ট ২০২১
প্রতীকী ছবি

রাজধানীর কদমতলীর রায়েরবাগ মদিনাবাগ এলাকায় মোবাইল ব্যবহার করতে না দেয়ায় বাবার ওপর অভিমান করে তাসলিমা আক্তার তাসমিন (১৬) নামের এক কিশোরী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

রোববার (১ আগস্ট) রাত সাড়ে ৯টার টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। অচেতন অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক রাত ১১টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

তাসলিমার বাবা তুষার শেখ জানান, তার মেয়ে শনিরআখড়া বর্ণমালা স্কুল থেকে এবার এসএসসি পরীক্ষার্থী। স্কুল বন্ধ থাকায় ঠিকমতো পড়াশোনা করত না। দিনের অধিকাংশ সময় মোবাইল ব্যবহার করত। এজন্য তিনি মেয়েকে মোবাইলে রেখে দিতে বলেন। তবুও মোবাইল ব্যবহার করলে বাবা জোর করে তার হাত থেকে মোবাইল নিয়ে নেয়।

পরে অভিমানে রুমে গিয়ে দরজা বন্ধ করে দেয় তাসলিমা। কিছুক্ষণ পর দরজার পাশে গিয়ে ডাকাডাকি করলে না খুললে দরজা ভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে দেখা যায়, সে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ওড়না দিয়ে গলায় ফাঁস দিয়েছে। অচেতন অবস্থায় ঢাকা মেডিকেলে নেয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া জানান, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢামেক মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি সংশ্লিষ্ট থানাকে অবগত করা হয়েছে।

এএএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]