ইভ্যালির রাসেলের মুক্তির দাবিতে শাহবাগে ভুক্তভোগীরা

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৩২ পিএম, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১

ইভ্যালির এমডি মোহাম্মদ রাসেল ও চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের মুক্তির দাবি জানিয়েছেন ভুক্তভোগী ক্রেতা ও বিক্রেতারা।

শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে শাহবাগ জাতীয় জাদুঘরের সামনে এক বিক্ষোভ থেকে তারা এ দাবি জানিয়েছেন। এ সময় ইভ্যালির কয়েকশো গ্রাহক উপস্থিত ছিলেন।

বিক্ষোভকারীরা ‘বাংলাদেশের ই-কমার্স, নষ্ট হতে দেবো না’, ‘ষড়যন্ত্রের কালো হাত, ভেঙ্গে দাও উড়িয়ে দাও’ সহ নানা ধরনের স্লোগান দিতে থাকেন। প্রথমে তারা শাহবাগের রাস্তায় দাড়িয়ে প্রতিবাদ শুরু করলেও পরে জাতীয় জাদুঘরের সামনে যান এবং নানা ধরনের স্লোগান সংবলিত ব্যানার ও ফেস্টুন হাতে নিয়ে তারা বিচ্ছিন্নভাবে স্লোগান দিতে থাকে।

jagonews24

একজন কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন, আমার লাখের কাছাকাছি টাকা বিনিয়োগ করা আছে, প্রডাক্টের ডেলিভারির সময় অনেক আগেই পার হয়ে গেছে। কিন্তু আমি ধৈর্য ধরে আছি, ইভ্যালিকে সময় দিতে চাই। হঠাৎ প্রশাসন এভাবে তাকে গ্রেফতার করে আমাদের শেষ আশাটুকুও গ্রেফতার করেছে। অবিলম্বে রাসেল ভাইয়ের মুক্তি চাই।

এক পর্যায়ে বিক্ষোভকারীদের স্থান ত্যাগ করার জন্য অনুরোধ করলে তারা স্থান ত্যাগ না করে অবস্থান করায় পুলিশ ধাওয়া করে। পরে আবার সংঘটিত হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে তারা।

সুমন মৃধা নামে একজন বিনিয়োগকারী বলেন, আমাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশ বাধা দিয়েছে। কষ্টার্জিত টাকা যাতে আদায় করতে পারি তাই রাসেল ভাইয়ের মুক্তির দাবিতে এখানে দাঁড়িয়েছিলাম। কিন্তু পুলিশ আমাদের ওপর লাঠিচার্জ করেছে।

শাহবাগ থানা পুলিশ জানায়, তারা দীর্ঘসময় ধরে সেখানে বিশৃঙ্খলা করছিল। তাদের চলে যেতে বলেছি কিন্তু আমাদের কথায় কর্ণপাত না করে বিশৃঙ্খলা বাড়িয়ে চলছিল। তাই আমরা তাদের সড়িয়ে দিয়েছি।

এমএসএম/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]