সীতাকুণ্ডে তেলবাহী লরি থেকে হেলপারের মরদেহ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:১৯ পিএম, ১৬ জানুয়ারি ২০২২
ফাইল ছবি

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে একটি তেলবাহী লরি থেকে নুরুল ইসলাম (২২) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (১৫ জানুয়ারি) দিবাগত রাতে থানার বটতল এলাকার একটি ফিলিং স্টেশনের সামনে থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নুরুল ইসলামের গ্রামের বাড়ি ফেনীর সোনাগাজী এলাকায়। তার বাবার নাম বদিউজ্জামান বলে জানা গেছে। তিনি তেলবাহী ওই লরির হেলপার ছিলেন।

পুলিশ জানায়, নুরুল ইসলাম কীভাবে মারা গেছেন তার সঠিক তথ্য পাওয়া যায়নি। তবে লরিচালক বাবুল শনিবার রাতে হেলপারের পরিবারকে ফোন করে জানান, নুরুল ইসলাম ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের কুমিরা এলাকায় দুর্ঘটনায় মারা গেছেন এবং তার মরদেহ লরিতে করে ফেনী নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। কিন্তু নুরুল ইসলামের পরিবার মরদেহ গ্রামের বাড়িতে নিতে বারণ করেন।

এরপর চালক বাবুল সীতাকুণ্ডের বটতল এলাকার একটি ফিলিং স্টেশনের সামনে লরি রেখে পালিয়ে যান। লরিতে মরদেহ দেখে ফিলিং স্টেশনের কর্মকর্তারা কুমিরা হাইওয়ে থানায় খবর দেন। হাইওয়ে থানার কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে পৌঁছে নুরুল ইসলামের মরদেহ উদ্ধার করেন।

কুমিরা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. আব্দুল্লাহ জাগো নিউজকে বলেন, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় সীতাকুণ্ড থানায় একটি মামলা দায়ের হচ্ছে।

সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম আজাদ জাগো নিউজকে বলেন, নিহতের পরিবারের সদস্যরা থানায় এসেছেন। তাদের অভিযোগ সাপেক্ষে লরিচালক বাবুলের বিরুদ্ধে মামলা নেওয়া হচ্ছে।

মিজানুর রহমান/এমআরআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]