পুরান ঢাকার যানজটে ভোগান্তিতে বিসিএস পরীক্ষার্থীরা

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়
প্রকাশিত: ০২:০৮ পিএম, ২৭ মে ২০২২

প্রতিদিনের মতো আজও রাজধানীর পুরান ঢাকার অলিগলি আর প্রধান সড়কগুলোতে সকাল থেকেই ছিল তীব্র যানজট। আর এতে চরম ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে ৪৪তম বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষার্থীদের। যানজটের কারণে নির্ধারিত সময়ে কেন্দ্রে আসতে অনেককেই বেগ পেতে হয়েছে। ২০০ নম্বরের দুই ঘণ্টার পরীক্ষা শুক্রবার (২৭ মে) দুপুর ১২টায় শেষ হওয়ার পরও যানজটের চিত্র ছিল একই।

তীব্র গরম, পথচারী ও যানবাহনের ভিড় উপেক্ষা করে কেন্দ্রে যেতে হয়েছে পরীক্ষার্থীদের। ভোগান্তির শিকার হয়েছেন সঙ্গে আসা অভিভাবকেরাও। এদিন রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী কলেজ, কবি নজরুল কলেজ, ঢাকা গভর্নমেন্ট মুসলিম হাইস্কুল, পোগজ ল্যাবরেটরি হাইস্কুলে ৪৪তম বিসিএসের এমসিকিউ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

jagonews24

রাজধানীর উত্তরা থেকে সোহরাওয়ার্দী কলেজে পরীক্ষা দিতে এসেছেন তাহিরা আক্তার। তিনি জাগো নিউজকে বলেন, আমি এর আগে এ এলাকায় আসিনি। সকালে পরীক্ষা দিতে আসার সময় গুলিস্তান থেকেই জ্যাম শুরু হয়। এদিকে রাস্তাও অনেক সরু। যানবাহন আর মানুষের ভিড়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছতে অনেক সমস্যা হয়েছে। আমার সঙ্গে বড় ভাই এসেছেন। পরীক্ষা শেষে উনাকে খুঁজে পেতে কষ্ট হয়েছে। সোহরাওয়ার্দী কলেজ থেকে ভিক্টোরিয়া পার্ক বাস স্ট্যান্ড পর্যন্ত আসতে আধা ঘণ্টার বেশি লেগেছে।

jagonews24

একই অবস্থার মুখোমুখি ঝিনাইদহ থেকে আসা পরীক্ষার্থী নাজমুল হোসেনেরও। তিনি জানান, কবি নজরুল কলেজে পরীক্ষার আসন পড়েছে। কিন্তু যানজট আর মানুষের ভিড় সামলে কেন্দ্রে পৌঁছেছি সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে। তাড়াহুড়োর কারণে পরীক্ষা ভালোভাবে শুরু করতে পারিনি।

এদিন বিসিএস পরীক্ষা ঘিরে সকাল থেকে পুরান ঢাকাসহ রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় যানজট নিরসনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর বাড়তি তৎপরতা চোখে পড়ে।

কোতয়ালি থানা পুলিশের দায়িত্বরত উপ-পরিদর্শক (এসআই) নাহিদ হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, পরীক্ষার্থীদের যেন যানজটের ভোগান্তিতে পড়তে না হয় সেজন্য আমাদের টিম সকার থেকে কাজ করেছে।

রায়হান আহমেদ/এমকেআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]