শাহজালালে ২৩ লাখ সৌদি রিয়াল ফেলে যাত্রী উধাও

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:৪১ পিএম, ৩০ জুন ২০২২
ফাইল ছবি

হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২২ লাখ ৯৯ হাজার ৫০০ সৌদি রিয়াল জব্দ করেছে ঢাকা কাস্টম হাউজ। এ রিয়ালগুলো লাগেজে করে দুবাই যাচ্ছিলেন মামুন খান নামে একজন যাত্রী। তবে ইমিগ্রেশনে লাগেজভর্তি রিয়াল রেখে পালিয়ে যান তিনি। জব্দ সৌদি রিয়ালের মূল্যমান বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ছয় কোটি টাকা।

বুধবার (২৯ জুন) রাতে এ ঘটনা ঘটে। ঢাকা কাস্টম হাউসের ডেপুটি কমিশনার (প্রিভেন্টিভ) মোহাম্মদ আবদুস সাদেক এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, বুধবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে এমিরেটস এয়ারলাইন্সের দুবাইগামী ইকে৫৮৫ ফ্লাইটের চেকিং চলছিল। ওই সময় ফ্লাইটের প্যাসেঞ্জারস হোল্ড ব্যাগেজ স্ক্রিনিং রুমের স্ক্যানিং মেশিনে লাগেজটি স্ক্যান করা হলে মুদ্রা সদৃশ বস্তুর অস্তিত্ব পাওয়া যায়। তবে লাগেজটির মালিককে খোঁজাখুজি করেও পাওয়া যায়নি। পরে এভিয়েশন সিকিউরিটি ও কাস্টমস গোয়েন্দা কর্মকর্তার সহায়তায় লাগেজটি কাস্টমস হলে এনে অন্যান্য সংস্থার উপস্থিতিতে খোলা হয়। লাগেজে থাকা ৩১টি শার্টের ভেতরে কাগজের বোর্ডের মধ্য রিয়ালগুলো বিশেষ কৌশলে বহন করা হচ্ছিল।

কাস্টম কর্মকর্তা আবদুস সাদেক বলেন, ‘লাগেজের মালিক ইমিগ্রেশন কমপ্লিট না করেই এয়ারপোর্ট থেকে পালিয়েছেন। ফলে যাত্রীকে খুঁজে না পাওয়ায় লাগেজের সঙ্গে থাকা ট্যাগ থেকে এমিরেটস কাউন্টার, ইমিগ্রেশন ও এভিয়েশন সিকিউরিটির সহায়তায় যাত্রীর বিস্তারিত তথ্য পাওয়া যায়।’

তিনি বলেন, ‘ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। জব্দ বৈদেশিক মুদ্রা ও লাগেজ ট্যাগের সঙ্গে থাকা তথ্যের ভিত্তিতে মামুন খান নামে ওই যাত্রীর বিরুদ্ধে বিমানবন্দর থানায় মামলা প্রক্রিয়াধীন। রিয়ালগুলো কাস্টমস গুদামে জমা দেওয়া হবে। এছাড়া কাস্টমস অ্যাক্ট অনুযায়ী এ বিষয়ে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

এইচএআর/এএএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]