মাঠ-পার্কে খেলাধুলার অধিকার নিশ্চিতের দাবি কিশোরীদের

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:২৫ পিএম, ০৩ অক্টোবর ২০২২
রায়েরবাজার বৈশাখী খেলার মাঠে আয়োজিত সচেতনতামূলক কর্মসূচি

মাঠ ও পার্কে খেলাধুলার অধিকার নিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছে রায়েরবাজার এলাকার অর্ধ শতাধিক শিক্ষার্থী।

সোমবার (৩ অক্টোবর) সকালে রায়েরবাজার বৈশাখী খেলার মাঠে একটি সচেতনতামূলক কর্মসূচিতে এই দাবি তুলে ধরে শিক্ষার্থীরা।

বিশ্ব বসতি দিবস উপলক্ষে রায়েরবাজার উচ্চ বিদ্যালয়, ঢাকা আইডিয়াল ক্যাডেট স্কুল, ধানমন্ডি কচিকণ্ঠ হাইস্কুল, আলী হোসেন বালিকা বিদ্যালয়, সাকসেস মডেল হাইস্কুল, ইনস্টিটিউট অব ওয়েলবিইং বাংলাদেশ এবং ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ ট্রাস্ট এ কর্মসূচির আয়োজন করে।

‘পার্ক ও খেলার মাঠে নারী, শিশু ও প্রতিবন্ধী ব্যক্তিসহ সকলের প্রবেশগম্যতা নিশ্চিত করুন’ শীর্ষক কর্মসূচিতে বক্তারা বলেন, নগর এলাকায় নিয়মিত খেলাধুলা বা কায়িক পরিশ্রম করে মাত্র আড়াই শতাংশ কিশোর-কিশোরী। সুযোগের অভাব এবং সামাজিক বাধার কারণে এদের মধ্যে কিশোরীদের সংখ্যা অত্যন্ত নগণ্য। ঢাকার দুই সিটি করপোরেশন থেকে বিভিন্ন মাঠ-পার্ক উন্নয়নের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কিন্তু এসব ক্ষেত্রে নারী বা কিশোরীদের উপস্থিতি সেভাবে বাড়েনি। প্রতিবন্ধী শিশুদের অবস্থা আরও ভয়াবহ। সঠিক বিকাশ নিশ্চিতে নগরের মাঠ-পার্কগুলোতে মেয়ে শিশু-কিশোরী-নারী-প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের জন্যও খেলাধুলার সুযোগ সৃষ্টি প্রয়োজন।

jagonews24

বক্তারা আরও বলেন, বর্তমানে এলাকাভিত্তিক যে পরিমাণ মাঠ, পার্ক ও উন্মুক্তস্থান রয়েছে তা একটি শহরের অনুপাতে খুবই কম। বেশিরভাগ স্কুলেই কোনো খেলার মাঠ নেই। পর্যাপ্ত খেলাধুলার স্থান ও সুযোগ না থাকায় কম্পিউটার ও মোবাইল ফোনে আসক্তি বাড়ছে। কৈশোর জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ সময়। এ সময়ে মানসিক স্বাস্থ্য ভালো না থাকলে অনেকেই এককেন্দ্রিকতা, আত্মবিশ্বাহীনতাসহ বিভিন্ন সমস্যায় ভোগে। এছাড়া শারীরিক স্বাস্থ্যেও নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। ২৬ শতাংশের বেশি শহুরে কিশোর-কিশোরীর ওজন স্বাভাবিকের থেকে বেশি।

কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা আইডিয়াল ক্যাডেট স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা এম এ মান্নান মনির, রায়েরবাজার উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক তাহাজ্জোত হোসেন, ধানমন্ডি কচিকণ্ঠ হাইস্কুলের শিক্ষক রিতা আকতার, ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ ট্রাস্টের প্রজেক্ট ম্যানেজার নাঈমা আকতার প্রমুখ। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ইনস্টিটিউট অব ওয়েলবিইং বাংলাদেশ, কার ফ্রি সিটিজ অ্যালায়েন্স বাংলাদেশ ও ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ ট্রাস্টের কর্মকর্তারা।

কর্মসূচি থেকে বক্তারা পার্ক ও খেলার মাঠে নারী-শিশু-প্রতিবন্ধী ব্যক্তিসহ সবার প্রবেশগম্যতা নিশ্চিত করার দাবি জানান। এছাড়াও মাঠ-পার্কে সবার নিরাপত্তা নিশ্চিত করা, নারীদের জন্য পৃথক কর্নার তৈরি, মেয়ে শিশু ও কিশোরীদের মাঠে আসতে উৎসাহী করার লক্ষ্যে বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ, এলাকাভিত্তিক সামাজিকীকরণ ও খেলাধুলার সুযোগ গড়ে তোলাসহ বিভিন্ন সুপারিশ তুলে ধরেন।

এসএম/কেএসআর/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।