শিগগির কাজে ফিরতে পারবেন আবু হেনা রনি, জানালেন স্ত্রী সম্পা

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:৫৩ পিএম, ০৭ অক্টোবর ২০২২
ফাইল ছবি

কৌতুক অভিনেতা আবু হেনা রনির ভোকালে (কণ্ঠে) এখন আর কোনো সমস্যা নেই। আগের মতোই স্বাভাবিক রয়েছে। খুব তাড়াতাড়িই কাজে ফিরতে পারবে আশা করি। তবে মাসখানেক কিছুটা নিয়মের মধ্যে থাকতে হবে।

আবু হেনা রনির স্ত্রী রুমানা রশিদ সম্পা শুক্রবার (৭ অক্টোবর) দুপুরে জাগো নিউজকে এসব কথা জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, রনির অবস্থা এখন ভালো। দুই কাঁধের ব্যান্ডেজ খুলে দিয়েছে। এখন শুধু হাতের তালুতে ব্যান্ডেজটা রয়েছে। চলাফেরা, খাওয়া দাওয়া স্বাভাবিকভাবেই করতে পারছে।

তিনি বলেন, আগামী দুই একদিনের মধ্যেই হয়তো ডাক্তাররা ছেড়ে দিতে পারেন।

স্বামীর কাজে ফেরার বিষয়ে সম্পা বলেন, রনির ভোকালে এখন আর কোনো সমস্যা নেই। আগের মতোই স্বাভাবিক রয়েছে। খুব তাড়াতাড়িই কাজে ফিরতে পারবে বলে আশা করি। তবে মাসখানেক কিছুটা নিয়মের মধ্যে থাকতে হবে। ধুলাবালি থেকে আপাতত দূরে থাকতে হবে।

গত ১৬ সেপ্টেম্বর বিকেলে জেলা পুলিশ লাইনস মাঠে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের বর্ষপূর্তির অনুষ্ঠান ও নাগরিক সম্মেলনে আবু হেনা রনিসহ ৫ জন দগ্ধ হন। দগ্ধ অন্যরা হলেন, মোশাররফ হোসেন, জিল্লুর রহমান, ইমরান হোসেন ও রুবেল হোসেন।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, অনুষ্ঠান শুরুর আগে প্রধান অতিথিসহ অন্যান্য অতিথিদের উদ্বোধনী মঞ্চে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রধান অতিথির হাতে বেশ কিছু বেলুন দেওয়া হয় উড়িয়ে দেওয়ার জন্য। কিন্তু বারবার চেষ্টা করলেও বেলুনগুলো উড়ছিল না। পরে কয়েকজন পুলিশ সদস্য বেলুনগুলো মঞ্চের পেছনে নিয়ে যান। শুধু পায়রা উড়িয়ে স্বরাষ্ট্রামন্ত্রীসহ অন্য অতিথিরা অনুষ্ঠানের মূল মঞ্চে চলে যান।

অতিথিরা মূল মঞ্চে চলে যাওয়ার কিছু সময় পর কয়েকজন পুলিশ সদস্য বেলুন বিক্রেতাকে বকাঝকা করেন। এতে বেলুন বিক্রেতা নিজেই বেলুনে আগুন লাগিয়ে ওড়ানোর চেষ্টার করেন। এ সময় বিস্ফোরণ ঘটে। এতে পাশে বসে থাকা কৌতুক অভিনেতা আবু হেনা রনিসহ ৫ জন দগ্ধ হন।

এদিকে ওই ঘটনা তদন্তে জিএমপির ডিসি (অপরাধ-উত্তর) আবু তোরাব মোহাম্মদ শামসুর রহমানকে প্রধান করে গঠন করা হয়েছে চার সদস্য বিশিষ্ট কমিটি।

কমিটিতে জিএমপির এডিসি (উত্তর) রেজনোয়ান আহমেদ, এসি (প্রসিকিউশন) ফাহিম আশজাদ ও মেট্রো সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলামকে সদস্য করা হয়েছে।

আরএসএম/এমএইচআর/এমএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।