‘৩০০ আসনের নিশ্চয়তা পেলে বিএনপি ইসির বিরুদ্ধে কথা বলবে না’

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:০৬ পিএম, ১৯ জানুয়ারি ২০১৮
ফাইল ছবি

বিএনপির নেতাদের বক্তব্যের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, জাতীয় সংসদের ৩০০ আসনই বিএনপি পাবে এমন নিশ্চয়তা পেলে তারা নির্বাচন কমিশন নিয়ে আর কোনো কথা বলবে না। স্বার্থে হানী ঘটলেই তারা সমালোচনা শুরু করে।

শহীদ জননী জাহানারা ইমামের আন্দোলনের ২৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শুক্রবার বিকেলে রমনা ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির উপদ্ষ্টো সাবেক বিচারপতি শামসুল হুদা। আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির নেতা অধ্যাপক মুনতাসির মামুন, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার কবির, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি শফিকুর রহমান, মেজর জেনারেল (অব:) আব্দুর রশীদ, শাহীন রেজা নূর, ডা. নূজহাত চৌধুরী ও শমী কায়সার।

নিজ দলের কথা উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগও ভুলের ঊর্ধ্বে নয়। আমাদের কিছু নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা হয়েছে। আমরা কাউকে ছেড়ে দেইনি। আমাদের একজন মন্ত্রীর ছেলে এখনও কারাগারে, একজন রানিং এমপি কারাগারে, তিনজন মন্ত্রী এখনও আদালতে হাজিরা দিচ্ছেন। এমনকি নারায়ণগঞ্জের ঘটনার তদন্ত করে অভিযুক্ত যেই হোক তার বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা বিএনপির মতো ছেড়ে দেই না। অভিযোগ উঠলেই ব্যবস্থা নিই।

তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে বৈঠক করে কমিশনারের বক্তব্যে বিএনপি পঞ্চমুখ হয়েছে, এখন একটু স্বার্থে লাগলেই তারা কুণ্ঠিত হন। বিএনপি শুধু মিথ্যাচার করে। আর ঘরে বসে ভাঙা রেকর্ড বাজান। আপনাদের নির্বাচনের রূপরেখা এখনও মানুষ জানে না। তাই বিএনপি আন্দোলনেও ব্যর্থ, নির্বাচনেও ব্যর্থ হবে।

ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির নেতা অধ্যাপক মুনতাসির মামুন বলেন, বিএনপি কি বাংলাদেশকে বিশ্বাস করে? না করে না। আমরা শুধু জামায়াতকে বলি তারা পাকিস্তানের ধ্যান ধারণায় চলছে। আসলে বিএনপিও একই। পাকিস্তানের ভাবধারা নিয়ে বিএনপি চলছে তারপরও কেন বিএনপিকে নির্বাচনের জন্য ডাকা হচ্ছে এমন প্রশ্ন তোলেন তিনি।

এফএইচএস/এমআরএম/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :