মুখোশ খুলে বি. চৌধুরী-ড. কামাল দণ্ডিত খালেদা-তারেকের পক্ষে

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৩১ পিএম, ০৮ অক্টোবর ২০১৮
ফাইল ছবি

‘নীতি নৈতিকতার মুখোশ খুলে ফেলে বি. চৌধুরী-ড. কামাল দণ্ডিত রেজিস্টার্ড দুর্নীতিবাজ খালেদা-তারেকের পক্ষে মাঠে নেমেছেন’ বলে অভিযোগ করেছেন তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু।

সোমবার রাজধানীর ডেমরায় আমুলিয়া মডেল টাউন ময়দানে ঢাকা-৫ আসনে জাসদের নির্বাচনী সমাবেশ ও গণমিছিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ অভিযোগ করেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বি. চৌধুরী-ড. কামাল বিএনপির সঙ্গে একমঞ্চে আন্দোলনের নামে নির্বাচন বানচাল করতে দণ্ডিত খালেদা-তারেককে রাজনীতিতে পুনর্বাসন করার পাঁয়তারা করছেন। এটি বাংলাদেশকে পাকিস্তান-আফগানিস্তানের মতো রক্তাক্ত পথে নিয়ে যাবার চক্রান্ত।’

বিএনপি-বি. চৌধুরী-ড. কামাল উত্থাপিত নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন ও খালেদাসহ সাজাপ্রাপ্তদের মুক্তির দাবির সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘দীর্ঘ ১০ বছর ধরে নির্দলীয় সরকারের কোনো নির্দিষ্ট কাঠামো না দিয়ে নির্বাচনের দু’দিন আগে সুনির্দিষ্ট রূপরেখা ছাড়া নির্দলীয় সরকারের দাবি তোলা আসলে হাওয়ায় ভাসানো কথা বা আকাশের ঠিকানায় লেখা চিঠি যা জনগণ বা সরকার কারো কাছেই পৌঁছাবে না।’

২০১৮ সালের নির্বাচনের পর দেশকে যদি শান্তি, উন্নয়ন, সুশাসনের ধারায় রাখতে হয়, তবে জঙ্গি-রাজাকারের সরকার আসতে দেয়া যাবে না। ১৯৭৫ থেকে ২০০৮ সাল পর্যন্ত অপরাজনীতির ধারার চিরতরে ছেদ ঘটাতে ২০১৮ সালের নির্বাচনেই রাজাকার-জঙ্গি ও তাদের লালনকারী খালেদা-বিএনপি-জামায়াতকে রাজনীতি থেকে চিরতরে বাদ দিতে হবে।’

এ সময় ঢাকা-৫ আসন থেকে ১৪ দলীয় প্রার্থী হিসেবে জাসদ ঢাকা মহানগর পূর্ব এর সভাপতি শহীদুল ইসলামের নাম প্রস্তাব করেন জাসদ সভাপতি।

জাসদ নেতা শহীদুল ইসলামের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন জাসদের সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার, কার্যকরী সভাপতি রবিউল আলম, আব্দুল হাই তালুকদার, অ্যাডভোকেট হাবিবুর রহমান শওকত, নাদের চৌধুরী, নুরুল আখতার, আফরোজা হক রীনা, শফি উদ্দিন মোল্লা, ওবায়দুর রহমান চুন্নু, শওকত রায়হান প্রমুখ।

এইউএ/জেএইচ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :