কৃষকের আহাজারি-বোবা কান্নার প্রতিফলন নেই বাজেটে

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:২৭ পিএম, ১৩ জুলাই ২০১৯

চলতি (২০১৯-২০) অর্থবছরের বাজেটে অসহায় কৃষকের আহাজারি ও বোবা কান্নার প্রতিফলন নেই বলে অভিযোগ করেছে রাজনৈতিক দল ঐক্য ন্যাপ। শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত মানববন্ধনে দলটি এমন অভিযোগ করে।

মানববন্ধনে ঐক্য ন্যাপ নেতারা বলেন, কৃষক ন্যায্যমূল্য না পেয়ে আগুন দিয়ে ধান পুড়িয়ে মনের ক্ষোভ প্রকাশ করছে। কিন্তু কৃষকের আহাজারি ও বোবা কান্নার প্রতিফলন ঘটেনি বাজেটে। এছাড়া শ্রমিক, ছোট মাঝারি উৎপাদক, নিম্নবিত্ত, নারীসমাজসহ ধর্মীয় সংখ্যালঘু আদিবাসীর জন্য এ বাজেট নয়। এটি বড়লোক ও কালো টাকার মালিকদের বাজেট।

নেতারা আরও বলেন, কালো টাকা নির্ভর, ঋণখেলাপিবান্ধব এবং বিদেশে অর্থপাচারকারী সহায়ক বর্তমান বাজেটে সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগণের আকাঙ্ক্ষার ছিঁটেফোটাও নেই। চলতি বাজেটের গণবিরোধী চরিত্রের প্রকাশ ঘটেছে। বাজেট পাসের পরপরই তড়িঘড়ি করে গ্যাসের মূল্য বাড়ানো কীভাবে ব্যবসায়ীবান্ধব হয়। আসলে চলতি বাজেটে হয়েছে দুই নম্বরী বাজেট।

মানববন্ধনে ঐক্য ন্যাপ সভাপতি পংকজ ভট্টাচার্য বলেন, বাজেট পাস হতে না হতেই গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধি ঘটিয়েছে সরকার। যেখানে ভারত ও পাকিস্তানের গ্যাসের মূল্য এবার কমেছে আর বাংলাদেশ বেড়েছে অযৌক্তিকভাবে। গ্যাস-চুরি অপচয়ের সঙ্গে সহবাসস্থান করে বিদেশ থেকে তরল গ্যাস আমদানিকারকদের স্বার্থরক্ষায় মূল্যবৃদ্ধি করা হয়েছে। শতকরা ১ ভাগের স্বার্থে ৯৯ ভাগের বিরুদ্ধে প্রণীত হয়েছে এই গণবিরোধী বাজেট যা মেনে নিতে পারে না দেশবাসী।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন- সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আসাদুউল্লাহ্ তারেক, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এসএমএ সবুর, আব্দুল মুনায়েম নেহেরু, আলিজা হাসান, রঞ্জিত কুমার সাহা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ ভূঁইয়া, সংগঠনের মহানগর সভাপতি একেএম হেদায়েতুল্লাহ ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার সাইফুদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।

এসআই/বিএ/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :