‘বিএনপি কি বিদেশের কোনো চুক্তি সংসদে উত্থাপন করেছে’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:০২ পিএম, ১৭ নভেম্বর ২০১৯

বিএনপি নেতাদের প্রতি প্রশ্ন রেখে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি মহাসচিবকে জিজ্ঞেস করব, তারা যখন ক্ষমতায় ছিল তখন তারা বিদেশের কোনো চুক্তি সংসদে উত্থাপন করেছেন।

রোববার রাজধানীর কুড়িলে একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত সড়ক নিরাপত্তা আইন ও সড়ক পরিবহন আইন শীর্ষক আলোচনা সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিভিন্ন দেশ সফর করে যে সব চুক্তি করেছেন সেসব বিষয়ে জানতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে বিএনপির চিঠি দেয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, সংসদে অনুমোদন নিয়েছে? পার্লামেন্টে কি বিএনপি আমলে কোনো চুক্তির অনুমোদন নিয়েছে?

তিনি বলেন, জোর গলায় বলতে পারি, বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনা দেশের স্বার্থ বিকিয়ে দিয়ে কোনো চুক্তি করবেন না। চুক্তি যেটা হয়েছে, এটা পরিষ্কার দিবালোকের মতো। চুক্তির মধ্যে গোপনীয়তা বলতে কিছু নেই। চুক্তি কি গোপন করে রাখা যায়?

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, তাদের (বিএনপি) তো অভিযোগই হচ্ছে আওয়ামী লীগ মানে দেশ বিক্রি, গোলামির চুক্তি, বাংলাদেশ ভারতের হয়ে যাবে। এগুলো তারা বলেই আসছে।

বিএনপির সঙ্গে শিবিরের সাবেক নেতাদের বৈঠককে কীভাবে দেখছেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, এটা নতুন কিছু নয়। বিএনপি আর জামায়াতে ইসলামী ওপরে যাই বলুক, তলে তলে এদের গলায় গলায় খাতির। এরা একই বৃন্তে দুটি খোল। একটিকে ছাড়া আরেকটি চলবে না। তারা জমজ ভাইয়ের মতোই আছে, কাজেই তাদের বিচ্ছিন্ন ভাবার কোনো কারণ নেই। দুটি দলই সাম্প্রদায়িক দল, তাদের মিল সভাই জানে, এটা পরিষ্কার।

এ সময় অপর এক প্রশ্নের জবাবে ২৪ নভেম্বর বৈঠকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পুলিশকে আইনের প্রয়োগের বিষয়ে সুস্পষ্ট ব্যাখ্যা জানিয়ে দেবেন বলেও জানান তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আইনে কোথাও কোনো অসঙ্গতি যদি থাকে, সমাজের কোথাও কোনো সমস্যা হলে, আইন তো আর কোরআন-হাদিস বা বাইবেল নয়। এটা প্রয়োজনে সংশোধন করা যাবে। এখানে আইনটা বাস্তবায়ন করা যাবে না -এমন দাবি যারা করেন তারা দেশের জনগণের যে মানসিকতা, দেশের মানুষের যে চাওয়া সেটার সঙ্গে বিরুদ্ধ, বৈরী আচরণ করছেন।

এইউএ/আরএস/জেআইএম