গার্ড অব অনারে নারী থাকা নিয়ে আপত্তির প্রতিবাদ ওয়ার্কার্স পার্টির

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৪:০৩ পিএম, ১৫ জুন ২০২১

বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মৃত্যুর পর ‘গার্ড অব অনার’ দিতে নারী ইউএনও’র পরিবর্তে বিকল্প চাওয়ার মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সংসদীয় কমিটির প্রস্তাবনা সম্পর্কে গভীর উদ্বেগ, নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি।

মঙ্গলবার (১৫ জুন) এক বিবৃতিতে পার্টির সভাপতি কমরেড রাশেদ খান মেনন ও সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা এ নিন্দা জানান।

বিবৃতিতে তারা মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়-সংসদীয় কমিটির সুপারিশের তীব্র সমালোচনা করে বলেন, এই সুপারিশ মুক্তিযুদ্ধের অবমাননা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী কাজ এবং এই প্রস্তাব সংবিধানের ২৮(১) ও (২) অনুচ্ছেদের সুস্পষ্ট লংঘন ও পরিপন্থী। এ ধরনের প্রস্তাব নারীর মর্যাদা ও সম-অধিকার হরণ এবং অশ্রদ্ধা প্রকাশের হীন বহিঃপ্রকাশ।

বিবৃতিতে নেতৃদ্বয়, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রীকে এই বিষয়ে কোনো রকম সিদ্ধান্ত গ্রহণ না করার আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য, মৃত্যুর পর বীর মুক্তিযোদ্ধাদের গার্ড অব অনার দেয়ার সময় নারীদের চায় না সংসদীয় কমিটি। এ জন্য যেসব এলাকায় নারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রয়েছেন, সেখানে বিকল্প খোঁজার সুপারিশ করা হয়েছে।

গত ১৩ জুন সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়। পাশাপাশি গার্ড অব অনার প্রদানের ক্ষেত্রে দিনের বেলায় আয়োজন করার সুপারিশ করা হয়।

এমইউ/বিএ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]