খালেদা জিয়াকে তিলে তিলে মেরে ফেলার ষড়যন্ত্র হচ্ছে: রিজভী

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৪৫ পিএম, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে তিলে তিলে মেরে ফেলার ষড়যন্ত্র হয়েছে, হচ্ছে। জেলখানায় সঠিক চিকিৎসা দেওয়া হয়নি। ভালো চিকিৎসা দেওয়ার জন্য বাহিরে যাওয়ারও অনুমতি দিচ্ছে না।

খালেদা জিয়ার ১৪তম কারামুক্তি দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে এসব কথা বলেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহল কবির রিজভী।

মঙ্গবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ মিলনায়তনে পাওয়ার অব ইয়ুথ এই আয়োজন করে।

সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে রুহল কবির রিজভী বলেন, একবার এরশাদের হাত থেকে আরেকবার ফখরুদ্দীন-মঈনুদ্দিনের কাছ থেকে অবরুদ্ধ গণতন্ত্রকে মুক্ত করেছেন আমাদের নেত্রী। কখনো আপস করেননি।

খালেদা জিয়াকে কারাগারে চিকিৎসা দেওয়া হয়নি মন্তব্য করে বলেন, আমরা বারবার তার উন্নত চিকিৎসা দেওয়ার কথা বলেছি। বারবার বলার পরও তা দেওয়া হয়নি। তাকে তিলে তিলে মেরে ফেলার যড়যন্ত্র হয়েছে। সাজানো মামলায় তাকে আটকে রাখা হয়েছে। রাষ্ট্রযন্ত্রকে কাজে লাগিয়ে তারা আটকে রেখেছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্দ্যেশে রিজভী বলেন, আপনার নেতৃত্বে দেশ ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। গুম-খুনের জন্য উদ্বেগ প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক মহল। আপনি শুধু ফ্লাইওভার আর উন্নয়ন দেখিয়ে যাচ্ছেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জিয়া পরিষদের সভাপতি ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ডা. আব্দুল কুদ্দুস, ঢাকা জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আবু আশফাক, ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি এবং বিএনপির সহ-তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আজিজুল বারি হেলাল, ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আমিরুল ইসলাম আলিম প্রমুখ।

আরএসএম/এমএইচআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]