‘সরকার প্রশাসনের বিরাট অংশকে দুর্নীতিবাজ বানিয়েছে’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:০০ পিএম, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১

সরকার প্রশাসনের বিরাট অংশকে দুর্নীতিবাজ বানিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সার্বভৌমত্ব রক্ষা পরিষদ (সরপ) আয়োজিত সার্বভৌমত্ব ও গণতন্ত্র রক্ষা শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

গয়েশ্বর বলেন, আজ রাষ্ট্রের যত প্রশাসন আছে এই সরকার নিজেও দুর্নীতি করেন তাদেরও একটা বিরাট অংশকে দুর্নীতিবাজ বানিয়েছে। অনৈতিক কর্মকাণ্ডে পুলিশ বাহিনীকে ব্যবহার করে তারা স্বর্গ্যরাজ্য ভোগ করছে। তাদের (পুলিশ) বেতন-ভাতার প্রয়োজন হয় না, তাদের উপরি ইনকাম যথেষ্ট। বর্তমানে এই দুর্নীতিবাজদের বড় দায়িত্ব হচ্ছে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় রাখা।

তিনি আরও বলেন, আজ বিভিন্ন সংগঠন বিভিন্নভাবে বলছে দেশে গণতন্ত্র নেই, গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে হবে। কিন্তু কেউ গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে কোনো চেষ্টা করছে না। কিছু সময় ভালো থাকতে নিজের আত্মসম্মান বিসর্জন দেওয়া যায়, কিন্তু তাতে সারাজীবন ভালো থাকা যায় না। তাই দেশের গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে, দেশকে ভালো রাখতে একটাই দাবি শেখ হাসিনার পদত্যাগ।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনি সুষ্ঠু নির্বাচন দেন, অন্তত এই কারণে হলেও আপনি এই দেশে থাকার সুযোগ পাবেন।

অন্যদের মধ্যে বক্তৃতা করেন- বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, সার্বভৌমত্ব রক্ষা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ওসমান গনী, সহ-সম্পাদক মো. শরীফ হোসেন প্রমুখ।

কেএইচ/জেডএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]