খালেদার চিকিৎসা: রাষ্ট্রপতির পদক্ষেপ চায় পার্থের বিজেপি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:০৯ পিএম, ১৩ জানুয়ারি ২০২২

মানবিক কারণসহ ভবিষ্যতে রাজনীতিবিদ, রাজনৈতিক দলসমূহের সৌহর্দপূর্ণ সম্পর্ক এবং দেশের সামগ্রিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে বেগম খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসার জন্য বিদেশে যাওয়ার বিষয়টি মন্ত্রিসভায় পেশ করার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি (বিজেপি)।

বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) রাত ৯টায় বঙ্গভবন থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের এ দাবির কথা জানান দলটির চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ।

তিনি বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিদেশে সুচিকিৎসার ব্যবস্থার বিষয়টি এখন জনগুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে পরিণত হয়েছে। সুচিকিৎসার অভাবে কোনো অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা দেশে অপ্রত্যাশিত অস্থিতিশীল পরিস্থিতির সৃষ্টি করতে পারে। এ বিষয়ে মহামান্য রাষ্ট্রপতিকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলেছি।

আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠু এবং গ্রহণযোগ্য করতে রাষ্ট্রপতির কাছে ৪টি দাবি জানিয়েছেন বলে জানান পার্থ।

এসময় বিগত দশম এবং একাদশ জাতীয় নির্বাচনের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, এই নির্বাচনে যেই পরিমাণ ভোট ডাকাতি, কারচুপি ও গুরুতর অসদাচরণ এবং অনিয়ম হয়েছে, তার কারণে দেশ এবং আন্তর্জাতিক অঙ্গণে বাংলাদেশর গণতন্ত্র, নির্বাচন প্রক্রিয়া এবং নির্বাচন কমিশনের ভাবমূর্তি সাংঘাতিকভাবে প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে। এটা পরিষ্কার যে কোনো দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়। এমতাবস্থায় বাংলাদেশে সংবিধানের অনুচ্ছেদ ৪৮(৫) মোতাবেক মহামান্য রাষ্ট্রপতিকে নির্দলীয়/অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের অধীনে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার ব্যাপারে মন্ত্রিসভায় বিবেচনার জন্য বলেছি।

নির্বাচন কমিশনের বিষয়ে দলটির চেয়ারম্যান বলেন, নির্বাচন কমিশন গঠনে আইন না থাকায় সরকার নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী সার্চ কমিটি এবং কমিশন গঠনে সুযোগ পায়। সংবিধানে একটি আইনের মাধ্যমে ইসি গঠনের নিদের্শনা আছে। তাই সংবিধানের আলোকে এই বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইন করা দরকার।

নির্বাচন পরিচালনায় সেনাবাহিনীকে সম্পৃক্ত করার বিষয়ে ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ বলেন, বাংলাদেশের যে কয়টি প্রতিষ্ঠান দেশ এবং বিদেশে সুনামের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছে তার মধ্যে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী অন্যতম। ফলে দেশের সেনাবাহিনীকে নির্বাচন পরিচালনায় সহযোগী শক্তি হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করা উচিত বলে মনে করি।

এর আগে রাত সাড়ে ৭ টায় বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থের নেতৃত্বে সাত সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল বঙ্গভবনে প্রবেশ করে। প্রতিনিধি দলে ছিলেন দলটির মহাসচিব আব্দুল মতিন সাউথ, প্রেসিডিয়াম সদস্য আব্দুল মতিন প্রকাশ, আব্দুল আজিজ, সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট মুনসুর রহমান, অ্যাডভোকেট লতিফুর রহমান লাবু, অ্যাডভোকেট গোলাম রাব্বানী।

আরএসএম/ইএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]