ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের সা. সম্পাদক জুবায়ের আটক

সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জুবায়ের আহমেদকে আটক করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)।

মঙ্গলবার (১৯ মে) ভোরে রাজধানীর সবুজবাগের গোড়ান এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

র‍্যাবের এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জাগো নিউজকে বলেন, জুবায়েরকে সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে আটক করা হয়েছে।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সোমবার দিনগত রাত ৩টা ২০ মিনিটের দিকে র‍্যাব-৩ ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি দেলোয়ার হোসেন সাঈদীকে আটক করে। তখন তাকে ছাড়িয়ে আনতে ঘটনাস্থলে যান জুবায়ের ও তার নেতাকর্মীরা। এসময় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা র‍্যাবের সঙ্গে বাগবিতণ্ডায় লিপ্ত হন। জুবায়ের ও নেতাকর্মীরা র‍্যাবের সঙ্গে খারাপ আচরণ করলে র‍্যাব তাকেও আটক করে নিয়ে যায়।

র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন জাগো নিউজকে বলেন, ‘স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর নাম ব্যবহারকারী চাঁদাবাজ ও সন্ত্রাসী দেলোয়ার হোসেন সাঈদীকে অস্ত্র, গুলি ও মাদকসহ আটক করেছে র‍্যাব-৩।’

তবে তিনি ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জুবায়েরকে আটকের বিষয়ে কিছু বলতে রাজি হননি।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বি এম মোজাম্মেল হক জাগো নিউজকে বলেন, আইনের ঊর্ধ্বে কেউ নয়। কেউ অপরাধ করলে তাকে আইনের আওতায় আসতে হবে। বঙ্গবন্ধুকন্যা এটা নিশ্চিত করেন। জুবায়েরকে রাতে র‌্যাব আটকেছে, এখনো ছাড়েনি। এর মাধ্যমে প্রমাণিত হয় যে দেশে আইনের শাসন বিদ্যমান। সে যদি অপরাধী হয় তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে সংগঠন। আবার এমনও হতে পারে এটা ভুল বোঝাবুঝি বা অসত্য তথ্য। এমন হলে ভিন্ন কথা। কিন্তু অভিযোগ প্রমাণিত হলে সে যেই হোক, তাকে শাস্তি পেতে হবে।

টিটি/আল সাদী ভূঁইয়া/এমএইচআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]