শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় নির্মল রঞ্জন গুহকে শেষ বিদায়

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:০৯ পিএম, ০১ জুলাই ২০২২
নির্মল রঞ্জন গুহ

শোক, শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহকে শেষ বিদায় জানিয়েছেন আত্মীয়-স্বজন, সহকর্মী ও হাজারো নেতাকর্মী।

রঞ্জন গুহর শেষ ইচ্ছা অনুযায়ী, শুক্রবার (১ জুলাই) সন্ধ্যায় দোহারের বাস্তা গ্রামে তাকে সমাধিস্থ করা হয়েছে। স্বেচ্ছাসেবক লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য মো. আবু তাহের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে শুক্রবার সকালে নির্মল গুহের কফিন কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেওয়া হলে স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। এ সময় সরকারের একাধিক মন্ত্রী ও অন্যান্য রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে মরদেহে শ্রদ্ধা জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। পরে দলের পক্ষ থেকেও ওবায়দুল কাদের কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে নিয়ে ফুলেল শ্রদ্ধা জানান।

এ সময় ওবায়দুল কাদের বলেন, তিনি আমাদের দলের সম্পদ ছিলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে করোনা মহামারী ও বন্যার সময় নির্মল গুহ সারা দেশের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তার মতো নিবেদিত প্রাণ নেতা আমাদের দলে আর পাব কী না জানি না।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পাদক আবদুস সবুর, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, কেন্দ্রীয় সদস্য আব্দুল আওয়াল শামীম, শাহাবউদ্দিন ফরাজী, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান।

আওয়ামী লীগের পরে স্বেচ্ছাসেবক লীগের পক্ষ থেকে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি গাজী মেজবাউল হক সাচ্চু ও সাধারণ সম্পাদক আফজাল বাবুর নেতৃত্বে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান, প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, ঢাকা উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম, প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্যও শ্রদ্ধা জানান।

এ ছাড়া আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন যুবলীগ, ছাত্রলীগ, যুব মহিলা লীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, কৃষক লীগের নেতারা নির্মল রঞ্জন গুহের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।

এর আগে স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম সংগঠনের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ছাত্র শিক্ষক মিলনায়তন (টিএসসি) থেকে শহীদ মিনার পর্যন্ত শোক র‌্যালিতে অংশ নেন।

পরে রঞ্জন গুহের মরদেহ নবাবগঞ্জ উপজেলা সদর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেওয়া হয়। সেখানে অশ্রুসিক্ত ছিলেন স্থানীয় আওয়ামী ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ। শহীদ মিনার বেদিতে স্মৃতিচারণ সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় বক্তব্য দেন স্বেচ্ছাসেবক লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি কাজী মেজবাউল হক সাচ্চু, সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু, আওয়ামী লীগের জাতীয় কমিটির সদস্য আব্দুল বাতেন মিয়া, ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন আহমেদ ঝিলু, ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পনিরুজ্জামান তরুন, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, ঢাকা জেলার সাধারণ সম্পাদক বরুণ ভৌমিক নয়ন, নির্মল রঞ্জন গুহর বড় ছেলে ও ঢাকা জেলা দক্ষিণ ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অনুপম গুহ নয়ন।

পরে শেষকৃত্যের জন্য তার মরদেহ ঢাকার দোহারে নিয়ে যাওয়া হয়। বিকেলে দোহার উপজেলার জয়পাড়া সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ, বাহ্রা হাবিল উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষ ফুলেল শ্রদ্ধায় শেষ বিদায় জানান নির্মল রঞ্জন গুহকে।

হৃদরোগ আর উচ্চ রক্তচাপে ভুগছিলেন নির্মল রঞ্জন গুহ। বুধবার (২৯ জুন) সিঙ্গাপুরের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৫৮ বছর বয়সে মারা যান তিনি।

এসএএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]