কোনো বাধাই ১০ ডিসেম্বরের সমাবেশ ঠেকাতে পারবে না: রিজভী

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১১:১৮ এএম, ২৩ নভেম্বর ২০২২

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, সরকার পতনের আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে এ আন্দোলন ঠেকানোর ক্ষমতা সরকারের নেই। হত্যা, হামলা, মামলা নির্যাতন করে জনগণের আন্দোলন দমানো যাবে না। সরকারের দুঃশাসনের বিরুদ্ধে দেশের মানুষের মধ্যে যে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে তা দমনের ক্ষমতা তাদের নেই।

তিনি বলেন, জনগণের দাবি একটা, তা হলো এ সরকারের বিদায়। গণতন্ত্রের মুক্তি, বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি। আগামী ১০ ডিসেম্বর নাকি সমাবেশ করতে দেওয়া হবে না। দশ তারিখে নয়াপল্টনে সমাবেশ হবেই হবে। কোনো বাধাই বিএনপির সমাবেশ ঠেকাতে পারবে না।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পুলিশের গুলিতে ছাত্রদল নেতা নয়ন নিহতের প্রতিবাদে বুধবার (২৩ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ৮টায় ঢাকা-মাওয়া মহাসড়কে বিক্ষোভ মিছিল শেষে এ কথা বলেন রিজভী। ঢাকা জেলা বিএনপির উদ্যোগে এ বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি খন্দকার আবু আশফাকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নিপুণ রায় চৌধুরীর পরিচালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। এসময় ঢাকা জেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি খন্দকার মাঈনুল ইসলাম বিল্টু, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক সামশুল ইসলামসহ প্রমুখ নেতাকর্মী অংশ নেন।

রিজভী আরও বলেন, আন্দোলনে ভীত হয়ে সরকার হত্যা ও নির্যাতনের পথ বেছে নিয়েছে। বেছে বেছে যুবকদের গুলি করে হত্যা করছে। আমাদের সাতজনকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। কিন্তু জনগণ আজ অন্যায়ের বিরুদ্ধে জেগে উঠেছে। সরকারের পতন ছাড়া তারা ঘরে ফিরে যাবে না।

তিনি বলেন, অবিলম্বে হত্যার রাজনীতি বন্ধ করুন। নির্দলীয় সরকারের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর করুন। করুণ পরিণতির হাত থেকে রক্ষা পেতে এটাই একমাত্র পথ। আপনাদের পালিয়ে যাওয়ার সুযোগও জনগণ দেবে না।

কেএইচ/এমএএইচ/এমএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।