বিএনপির কার্যালয় থেকে বোমা উদ্ধার: পুলিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:২৩ পিএম, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২

রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে বোমা ও ককটেল উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ম কমিশনার বিপ্লব কুমার সরকার।

বুধবার (৭ ডিসেম্বর) বিকেল ৩টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ৫ ঘণ্টার অভিযান শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি। তবে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, পুলিশ বাজারের ব্যাগে করে কার্যালয়ে বোমা নিয়ে এসেছে।

এদিকে পুলিশ যে বোমা ও ককটেল উদ্ধার করেছে সেগুলো রাত ৮টা ৪৩ মিনিটে বিএনপির কার্যালয়ের সামনে নিষ্ক্রিয় করা হয়। তিন বালতিতে রাখা বোমাগুলো নিষ্ক্রিয় করে।

jagonews24

এর আগে দুপুরে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ হয় দলটির নেতাকর্মীদের। এতে মকবুল হোসেন (৪০) নামে একজন নিহত হন। এছাড়া আহত হন আরও ২০ জন। সংঘর্ষের সময় টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট ছোড়ে পুলিশ। বিএনপির নেতাকর্মীরাও লাঠিসোঁটা নিয়ে পুলিশকে ধাওয়া করে। এরপর সংঘর্ষ শেষে বিএনপির কার্যালয়ে অভিযান চালায় পুলিশ।

আরও পড়ুন: পুঁতি কেনার এক হাজার টাকা নিয়ে এসেছিলেন নয়াপল্টন, ফিরলেন লাশ হয়ে

jagonews24

অভিযান শেষে বিপ্লব কুমার সরকার বলেন, দুপুর থেকে ধৈর্যের সঙ্গে অবস্থান করেছে পুলিশ। কোনো রকম কাউকে উসকানি দেওয়া হয়নি। এরপরও পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল ছোড়া হয়। বিএনপির পার্টি অফিসের তিনতলা থেকে হাতবোমা ও ককটেল নিক্ষেপ করা হয়। এতে আমাদের পুলিশ সদস্যরা আহত হন। এরপর জননিরাপত্তা নিশ্চিতে অভিযান চালানো হয়। বিএনপির পার্টি অফিস থেকে বিপুল পরিমাণ বিস্ফোরক, বোমা ও ককটেল উদ্ধার করা হয়েছে। এগুলো নাশকতা ও জননিরাপত্তা বিঘ্নিত করার জন্য আনা হয়েছিল।

এদিকে অভিযানের পর বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, ঢাকা মহানগর উত্তরের আহ্বায়ক আমানউল্লাহ আমান ও বিএনপি নেতা আব্দুস সালামসহ প্রায় ৩৫ জন নেতাকর্মীকে আটক করে পুলিশ।

এ বিষয়ে ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার বলেন, যারা সন্ত্রাসী কার্যকলাপ করার জন্য এসেছিলেন তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। নির্দিষ্ট করে বলা যাবে না কতজন গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের সবার বিরুদ্ধে মামলা রয়েছে।

পুলিশ বোমা নিয়ে পার্টি অফিসে গেছে মির্জা ফখরুলের এ অভিযোগের বিষয়ে বিপ্লব কুমার সরকার বলেন, অভিযোগ যে কেউ করতে পারে। আমরা সবার সামনেই অভিযান পরিচালনা করে বোমা উদ্ধার করেছি।

পুলিশের অভিযান ও সংঘর্ষের বিষয়ে বিএনপি মহাসচিব বলেন, সম্পূর্ণ পরিকল্পিতভাবে এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে। দলীয় কার্যালয় থেকে কেন্দ্রের শীর্ষপর্যায়ের নেতাসহ অন্তত দুই শতাধিক নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পুলিশ বিএনপির কার্যালয়ের ভেতরে ব্যাগ নিয়ে ঢুকেছে দাবি করে মির্জা ফখরুল বলেন, পুলিশ ব্যাগ-ট্যাগ নিয়ে ঢুকেছে। এগুলোকে বিস্ফোরক হিসেবে দেখাবে। এসব দেখিয়ে নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করবে। এরচেয়ে খারাপ কাজ আর কিছু হতে পারে না।

আরএএম/জেডএইচ/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।