রোহিঙ্গা পুনর্বাসন শীর্ষক ইউরোপীয় পার্লামেন্টে আ.লীগের সেমিনার

ফারুক আহাম্মেদ মোল্লা
ফারুক আহাম্মেদ মোল্লা ফারুক আহাম্মেদ মোল্লা
প্রকাশিত: ০৯:২৪ এএম, ১৭ অক্টোবর ২০১৯

রোহিঙ্গা পুনর্বাসন শীর্ষক ইউরোপীয় পার্লামেন্টে সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার বেলজিয়াম আওয়ামী লীগ ও মানবাধিকার সংগঠন হ্যান্ড টু হ্যান্ড ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় এ সেমিনারের আয়োজন করা হয়।

বক্তারা বলেন, রোহিঙ্গাদের জন্য কক্সবাজার ও টেকনাফের অর্থনীতি, পরিবেশ আজ হুমকির মুখে। ইউএনএইচসিআর-এর সহায়তায় রোহিঙ্গাদের ফেরত দেওয়ার পদক্ষেপ নিয়ে বাংলাদেশ সরকার মিয়ানমারের সাথে বেশকিছু দ্বিপক্ষীয় চুক্তি করেছে। কিন্তু মিয়ানমার রাজি হচ্ছে না।

তারা বলেন, কি কারণে মিয়ানমার ইইউ ও জাতিসংঘের কথা শুনছে না, রোহিঙ্গাদের ন্যায্য অধিকার ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যাপারে মিয়ানমার সরকারের কোনো গুরুত্ব লক্ষ্য করা যাচ্ছে না। মিয়ানমারকে চাপ প্রয়োগ করে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেওয়ার আহ্বান জানান ব্ক্তারা।

Parlament2

এ সময় বক্তব্য দেন- ইউরোপিয়ান পার্লামেন্টের সংসদ সদস্য, জুলি ওয়ারড, নিনা গিল, ওমরজী ইউনুছ, টানিয়া ফায়ন, বেলজিয়ামে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত শাহাদাত হোসেন, বাংলাদেশের সাবেক রাষ্ট্রদূত, ও আইসি রাষ্ট্রদূত ইসমত জাহান, ইনস্টিটিউট অব ডেমোক্রেটিক রাইটসের ডিরেক্টর পাওলো কাসাকা, ইউরোপিয়ান ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন সভাপতি ভিনসেন্সুকোস্টারিকা, পার্লামেন্ট সদস্য কেন্ডিডেট মেক্সিম কেরকভ, হিউম্যান রাইটস-এর উইলি ফটার।

আরও উপস্থিত ছিলেন- বেলজিয়াম আওয়ামী লীগ সভাপতি শহীদুল হক, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর চৌধুরী রতন, সিনিয়র সহ-সভাপতি বিধান দেব, উপদেষ্টা ড. ফারুক মির্জা, যুগ্ম সম্পাদক দাউদ খান সোহেল, দপ্তর সম্পাদক রাইসুল ইসলাম রাসেল, হ্যান্ড টু হ্যান্ড ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক গোলাম জিলানি, সহ-সভাপতি হুমায় মাসুদ হিমু, সহ-সভাপতি জহির খান, সাবেক যুগ্ম সম্পাদক এম এ মোরশেদ, রানা মর্তুজা, মহিলা সম্পাদক রাবেয়া জামান, সদস্যা দিলরুবা মিলি, শওকত জাহান মির্জা, রোহিঙ্গা অ্যাক্টিভিস্ট, আয়ারলেন্ডের সমান জোহার, আন্তর্জাতিক কলামিস্ট এম. এ করিম প্রমুখ।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে এখন প্রায় ১১ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা উদ্বাস্তু বসবাস করছে। যাদের বেশির ভাগই ২০১৭ সালের ২৫ আগস্টের পর মিয়ানমারের সামরিক বাহিনীর অভিযান থেকে বাঁচতে সীমান্ত পেরিয়ে বাংলাদেশে পালিয়ে আসে।

এমআরএম/পিআর

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - jagofeature@gmail.com