মোজাম্বিকে সন্ত্রাসীদের গুলিতে বাংলাদেশি নিহত

ফারুক আস্তানা
ফারুক আস্তানা ফারুক আস্তানা , দক্ষিণ আফ্রিকা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ০৪:৫১ পিএম, ৩০ নভেম্বর ২০২০

দক্ষিণ আফ্রিকার মোজাম্বিকে সন্ত্রাসীদের গুলিতে এক বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। নিহত সরোয়ার হোসেন (২৮) কক্সবাজার জেলার চকরিয়া উপজেলার বাসিন্দা।

স্থানীয় বাংলাদেশিরা জানান, রোববার (২৯ নভেম্বর) গভীর রাতে মোজাম্বিকের জাম্বেজিয়া প্রদেশের মাজেমাত নামক এলাকায় ডাকাত দল গুলি করে মৃত্যু নিশ্চিত করে মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়ে যায়।

পাঁচ বছর আগে ব্যবসা করার জন্য মোজাম্বিকে আসেন তিনি। এরই মধ্যে দেড়মাস আগে দেশে গিয়ে বিয়ে করে আবার মোজাম্বিকে ফিরে আসেন তিনি। নিহতের মরদেহ মোজাম্বিকের জাম্বেজিয়া প্রদেশের মাজেমাতে দাফন করা হবে বলে স্থানীয় বাংলাদেশিরা জানিয়েছেন।

এর আগে, চলতি মাসের ১৫ নভেম্বর মোজাম্বিকের নামপুলা প্রদেশের সালাওয়া নামক এলাকায় রাত ১১টার দিকে মুখে পলিথিন মোড়ানো অবস্থায় মিজানুর রহমানের মৃতদেহ উদ্ধার করে স্থানীয়রা। ওই এলাকায় তিনি দীর্ঘদিন ব্যবসা করে আসছিলেন। মিজানুর রহমানের দেশের বাড়ি চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলায়।

স্থানীয় বাংলাদেশিরা জানান, নিহত মিজানুর রহমান (৩০) বাড়িতে একাই থাকতেন। ধারণা করা হচ্ছে, শনিবার রাতের কোনো এক সময় সংঘবদ্ধ ডাকাত দল তার বাসায় হানা দিয়ে টাকা-পয়সা মালামাল লুট করে। পরে হাত পা-বেঁধে মুখ পলিথিন দিয়ে মুড়িয়ে চলে যায়। এতে শাসরোধ হয়ে তিনি মারা যান।

পাঁচ বছর আগে মিজানুর রহমান (৩০) মোজাম্বিক আসে। বিভিন্ন দোকানে চাকরি করে গত এক বছর ধরে নিজের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান গড়ে তোলেন।

সম্প্রতি আফ্রিকার মোজাম্বিকে ডাকাতি অপহরণ বেড়ে গেছে। পার্শ্ববর্তী দেশ দক্ষিণ আফ্রিকায় দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশি খুন ও অপহরণের শিকার হলেও মোজাম্বিকে বাংলাদেশিরা এতদিন নিরাপদে থেকে ব্যবসা বাণিজ্য করে আসছিলেন।

চলতি বছরের নভেম্বরেই দুই বাংলাদেশি ডাকাত দলের শিকার হয়ে মারা গেছে। অপহৃত হয়ে মুক্তিপণ দিয়ে বেঁচে ফিরেছেন আরও এক বাংলাদেশি।

বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আনিসুর রহমান মোজাম্বিক থেকে জানান, হঠাৎ করে মোজাম্বিকেও সন্ত্রাসীরা বাংলাদেশিদের টার্গেট করায় অনেকেই পরিবার নিয়ে আতঙ্কে দিন পার করছেন।

এমআরএম/পিআর

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - [email protected]