সিডনিতে শারদীয় দুর্গোৎসব

মো. ইয়াকুব আলী
মো. ইয়াকুব আলী মো. ইয়াকুব আলী অস্ট্রেলিয়া
প্রকাশিত: ০৭:১৫ পিএম, ১৮ অক্টোবর ২০২১

প্রতি বছরের মতো এবারও সিডনির শঙ্খনাদ কমিউনিটির উদ্যোগে দুর্গোৎসব হয়েছে। মহামারির কারণে পাঁচ দিনব্যাপী দুর্গোৎসবকে সংক্ষেপ দুই দিনে উদযাপন করা হয়।

সিডনির ইঙ্গেলবার্ণ সবার্বের গ্রেগ পারসিভাল হলে আয়োজন করা হয়েছিলো এবারের উৎসব। আর অতিমারির কারণে একেবারেই দর্শনার্থীদের সংখ্যাও সীমিত রাখা হয়েছিলো। দেবী দর্শন করতে গেলে অভ্যর্থনায় কোভিডের টিকার ছাড়পত্র দেখানো বাধ্যতামূলক করা হয়।

বৃহস্পতি ও শুক্রবার (১৪ ও ১৫ অক্টোবর) উৎসব উদযাপন করা হয়। সকাল থেকে শুরু হয়ে রাত সাড়ে নয়টা পর্যন্ত ছিলো এই আয়োজন। দুদিনই অনেক পুণ্যার্থী ভিড় করেন পূজা মণ্ডপে। অতিমারির কড়াকড়ি কিছুটা শিথিল হওয়ার পর এটাই ছিলো বাংলা ভাষাভাষী কমিউনিটির প্রথম উৎসব। মণ্ডপের সামনে সারাদিনই পুণ্যার্থীদের ছিলো চোখে পড়ার মতো ভিড়।

jagonews24

আয়োজকরা বলেন, আমরা আশা করেছিলাম হয়তোবা ৫০০ মানুষের আগমন হবে কিন্তু দর্শনার্থী এসেছিলেন দেড় হাজারেরও ওপরে।

সিডনিতে বাংলাদেশের পঞ্জিকা অনুযায়ী প্রতি বছর বিভিন্ন সংগঠন পালন করে আসছে এই শারদীয়া দুর্গোৎসব। করোনার কারণে অনেকেই এবার শেষ মুহূর্তে আয়োজন করা থেকে সরে এসেছিলেন। তার চেয়ে সবাই ঘরোয়াভাবে এই উৎসবে মনযোগী ছিলেন।

উৎসবে শামিল হয়েছিলেন স্থানীয় বাংলা ভাষাভাষী সকল পেশার মানুষের পাশাপাশি স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা। পূজার দুইদিন ইঙ্গেলবার্ণের গ্রেগ পারসিভাল হল যেন নেচে উঠেছিলো ঢাক আর কাঁসার শব্দে।

‘আসছে বছর আবার হবে’ এই মর্মবাণীর মাধ্যমে শেষ হয় এবারের উৎসব।

এমআরএম/এএসএম

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - [email protected]