লন্ডন বাংলা প্রেস ক্লাবের মিডিয়া কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট

ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল
ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল
প্রকাশিত: ০৯:৩০ এএম, ২৫ অক্টোবর ২০২১

যুক্তরাজ্যস্থ লন্ডন বাংলা প্রেস ক্লাব আয়োজিত মিডিয়া কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট শেষ হয়েছে। রোববার (২৪ অক্টোবর) পূর্ব লন্ডনের মাইলএন্ড স্টেডিয়ামে এ টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। দশ দলের শতাধিক খেলোয়াড় ও বিপুলসংখ্যক দর্শকের উপস্থিতিতে প্রাণবন্ত হয়ে উঠে মাইলএন্ড স্টেডিয়াম।

ফিফটি একটিভ ক্লাবের সার্বিক সহযোগিতায় দুপুর ১২টা থেকে মাইলএন্ড স্টেডিয়ামের মিনি ফুটবল পিচে সিক্স এ সাইট ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নেয় ১০টি দল। দলগুলো হলো- সাপ্তাহিক দেশ, চ্যানেল এস, আবাহনী, আইঅন টিভি, বাংলা পোস্ট, এলবি২৪, ওয়ান বাংলা ফ্রেন্ডস ইউনাইটেড, এসপি ইউনাইটেড, বিলেত বাংলা ও মিডল্যান্ড বাংলা মিডিয়া । তবে দুজন খেলোয়াড়ের আকস্মিক করোনা উপসর্গ দেখা দেওয়ায় মিডল্যান্ড বাংলা মিডিয়া টিম খেলায় অংশ নিতে পারেনি।

দশটি দল দুই গ্রুপে বিভক্ত হয়ে প্রথম রাউন্ড শেষে গ্রুপ-এ থেকে সেমিফাইনাল খেলার সুযোগ পায় চ্যানেল এস ও আবাহনী। গ্রুপ বি থেকে সেমিফাইনাল খেলে এলবি২৪ ও ওয়ান বাংলা ইউনাইটেড।

সেমিফাইনালে চ্যানেল এসকে টাইব্রেকারে পরাজিত করে ফাইনালে যায় ওয়ান বাংলা ইউনাইটেড। অন্যদিকে এলবি২৪কে ২-০ গোলে পরাজিত করে ফাইনালে পৌঁছায় আবাহনী।

jagonews24

টুর্নামেন্টের সবগুলো ম্যাচ খেলে দিনশেষে ১-০ গোলের ব্যবধানে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে সাংবাদিক জাকির হোসেন কায়েসের নেতৃত্বাধীন টিম ‘ওয়ান বাংলা ফ্রেন্ডস ইউনাইটেড’। রানার্সআপ হয়েছে সাংবাদিক বুলবুল হাসানের নেতৃত্বাধীন দল ‘আবাহনী’।

খেলা শেষে সংক্ষিপ্ত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। ইভেন্ট সেক্রেটারি রেজাউল করিম মৃধার পরিচালনায় ক্লাবের প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ এমদাদুল হক চৌধুরীর সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের স্পিকার কাউন্সিলর আহবাব হোসেন, ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ জুবায়ের, ফিফটি একটিভ ক্লাবের সভাপতি দৌলত খান বাবুল, সাধারণ সম্পাদক আনফর আলী, প্রেস ক্লাবের ট্রেজারার আ স ম মাসুমসহ অনেকে।

খেলা শেষে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়। টুর্নামেন্টে সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন ওয়ান বাংলার গোলকিপার জাকির হোসেন, সর্বোচ্চ গোলদাতা চ্যানেল এসের বাহার উদ্দিন।

এআরএ/জেআইএম

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - [email protected]