এশিয়া বার্লিন সামিটে অংশ নিল বাংলাদেশ

হাবিবুল্লাহ আল বাহার
হাবিবুল্লাহ আল বাহার হাবিবুল্লাহ আল বাহার
প্রকাশিত: ০৭:৩৮ পিএম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০

এশিয়া বার্লিন সামিট-২০২০ এ অংশগ্রহণ করেছে বাংলাদেশ। বুধবার (২৩ সেপ্টেম্বর) স্থানীয় সময় সকাল ১০টায় ‘এক্সপ্লোর গ্রিন বাংলাদেশ: আনলকিং দ্য পোটেনশিয়াল’ শীর্ষক সেমিনারে অংশ নিয়ে বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুযোগ ও পরিবেশ সম্পর্কে তুলে ধরা হয়।

মহামারি করোনাভারাসের কারণে এ বছর প্রথমবারের মত এই আন্তর্জাতিক সামিটটি বার্লিনের স্পিলফেল্ড ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বাংলাদেশ দূতাবাসের কমার্শিয়াল কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম সেমিনার হলে উপস্থিত থেকে বাংলাদেশের পক্ষে সেমিনারটি সঞ্চালনা করেন। বাংলাদেশ থেকে অনলাইনে নিজ নিজ ক্ষেত্রে সফল পাঁচজন উদ্যোক্তা সামিটে যোগদান করেন এবং তাদের বক্তব্য তুলে ধরেন।

বাংলাদেশ থেকে এতে অনলাইনে যোগ দেন বিটপি গ্রুপের এমডি এবং বিজিএমইএয়ের পরিচালক মিরান আলী। তিনি সেমিনারে রেডিমেট গার্মেন্টস শিল্পের স্থায়িত্ব নিয়ে সেমিনারে প্রেজেন্টেশন দেন।

jagonews24

অ্যাসোসিয়েশন অব ফ্যাশন ডিজাইনার অব বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট মানতাসা আহমেদ সেমিনারে সবুজ স্মার্ট, ঐতিহ্য সংরক্ষণ ও টেকসই টেকনোলজির প্রযুক্তি ব্যবহার করে ফ্যাশন: বাংলাদেশের তাঁত এবং কারুশিল্প শিল্পের প্রেক্ষিত বিষয়ে উপস্থাপন করেন। মোহম্মদ সামিউল ইসলাম (প্রোপাইটর জেড টেক) ‘লো কস্ট রুরাল ইন্টারনেট সলিউশন উইথ সোশাল ইম্প্যাক্ট’ বিষয়ে প্রেজেন্টেশন দেন।

সেমিনারে বাংলাদেশ দূতাবাসের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স এম মুরশিদুল হক খান প্রথমে তার স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন। বাংলাদেশ দূতাবাসের কমার্শিয়াল কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম বক্তাদের পরিচয় করিয়ে দেয়া, প্রশ্নোত্তর পর্ব সম্পাদনা করার পাশাপাশি পুরো ৯০ মিনিট সেমিনারটি পরিচালনা করেন। সেমিনারে পাঁচজন সফল উদ্যোক্তার ৫টি বিষয়ভিত্তিক প্রেজেন্টেশনের পাশাপাশি বাংলাদেশে বিনিয়োগের চমৎকার সুযোগ ও পরিবেশ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

উল্লেখ্য, বার্লিন স্টেট ডিপার্টমেন্টের অর্থায়নে এশিয়া বার্লিন সামিট গত ২১ সেপ্টেম্বর শুরু হয়ে ২৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলবে। এশিয়ার বিভিন্ন দেশের ব্যবসায়ীরা এ বছর অনলাইনে সেমিনারে অংশগ্রহণ করছেন।

এমএসএইচ/এমকেএইচ

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - [email protected]