ইরানে দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের কুরআন প্রতিযোগিতার আহ্বান ও শর্ত

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:২৬ পিএম, ০৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের নিয়ে ৪র্থ বার আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতা-২০১৯ আয়োজন করবে ইরান। এবারের প্রতিযোগিতায় দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য রয়েছে কিছু শর্ত। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের নিয়ম ও যোগাযোগের ঠিকানাও ঘোষণা করেছে দেশটি।

২০১৯ সালের এপ্রিল মাসে অনুষ্ঠিত এ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণে দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদ হাফেজদের সার্বিক সুবিধায় আয়োজক কমিটির গৃহীত শর্ত ও ঠিকানাসহ অন্যান্য বিষয়গুলো তুলে ধরা হলো-

মুসলিম বিশ্বের দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরান ৪র্থ আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতা আগামী ২০১৯ সালের এপ্রিলে আয়োজন করবে। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণে ইচ্ছুকরা নাম নিবন্ধন করতে পারবেন। ইতিমধ্যে নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। যা জানুয়ারি ২০১৯ পর্যন্ত অব্যাহত থাকবে।

যারা অংশগ্রহণ করতে পারবে
> অংশগ্রহণকারীদের বয়স ১৮ থেকে ৪৫ বছরের মধ্যে হতে হবে।
> প্রতিযোগিতা শুধু পুরুষ হাফেজদের জন্য এবং সম্পূর্ণ কুরআন হেফজ ও তিলাওয়াত (তাহক্বীক) বিভাগে অনুষ্ঠিত হবে।
> অংশগ্রহণকারীগণ শুধুমাত্র একটি বিভাগে অংশগ্রহণ করতে পারবে।
> অংশগ্রহণকারীগণ নিবন্ধনের সময় তাদের নির্বাচিত বিভাগ পরবর্তীতে পরিবর্তন করতে পারবে না।
> প্রত্যেক অংশগ্রহণকারীদের সহযোগী হিসেবে একজন সঙ্গীকে গ্রহণ করা হবে।
> প্রতিযোগী যে দেশের হয়ে অংশগ্রহণ করবে অবশ্যই তাকে সেই দেশের নাগরিক হতে হবে (সেই দেশের পাসপোর্ট থাকতে হবে)।
> নিবন্ধনের সময় পাসপোর্টের প্রথম পাতার ফটোকপি এবং পরবর্তীতে যোগাযোগ করার জন্য মোবাইল নম্বর দিতে হবে।
> বিগত বছরগুলোর প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে যারা প্রথম থেকে তৃতীয় স্থান লাভ করেছে, তারা ৪র্থ আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করতে পারবে না।
> প্রতিযোগী এবং তাদের একজন সহযোগীর ভিসা, প্লেনের টিকিট এবং ইরানে থাকার খরচ প্রতিযোগিতার আয়োজক কমিটির সদর দফতর বহন করবে।
> নিজ দেশের অভ্যন্তরীণ যাতায়াত খরচ প্রতিযোগীকেই বহন করতে হবে।
> চূড়ান্ত পর্বে অংশগ্রহণ করার জন্য ১৪ জমাদিউল আওয়াল ১৪৪০ হিজরি মোতাবেক ২১ জানুয়ারি, ২০১৯-এর মধ্যে প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র জমা দিতে হবে।

যেভাবে নির্বাচন করা হবে : তেলাওয়াত (তাহক্বীক) বিভাগে আগ্রহী ব্যক্তিদের শর্তসমূহ

> অংশগ্রহণকারীদের নিজের স্বকণ্ঠের তেলাওয়াতের সুরা যুমারের ১ থেকে ৫ আয়াত পর্যন্ত
অডিও অথবা ভিডিও ফাইল প্রেরণ করতে হবে।
> রেকর্ডকৃত ফাইলটি অবশ্যই নিজ নিজ দেশে অবস্থিত ইরানী কালচারাল সেন্টারে এবং সম্মানিত কালচারাল অ্যাডভাইজরের উপস্থিতি হতে হবে। যদি কোন দেশে ইরানী কালচারাল সেন্টার না থাকে তাহলে তেলাওয়াতকৃত ফাইলটি প্রতিযোগিতার সদর দপ্তরের hosseinsc@gmail.com ঠিকানায় প্রেরণ করতে হবে।
> সব ফাইল একদিনে এবং আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন বিচারকমণ্ডলী কর্তৃক মূল্যায়ন করা হবে।

সম্পূর্ণ কুরআন হেফজ বিভাগে অংশগ্রহণে আগ্রহী ব্যক্তিদের শর্তসমূহ
> আগ্রহী প্রতিযোগীদের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র প্রেরণের পর প্রাথমিক পর্বের প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের জন্য তাদের সাথে যোগাযোগ করা হবে
> ইন্টারনেটে ভিডিও কলের মাধ্যমে বিচারকমণ্ডলীদের উপস্থিতিতে প্রতিযোগীদের নিকট থেকে পরীক্ষা নেওয়া হবে।
যদি কোন আবেদনকারী প্রাথমিক পর্বে অংশগ্রহণ না করে, তাহলে তাকে মূল পর্ব থেকে বাদ দেয়া হবে।

অংশগ্রহণকারী দৃষ্টি পতিবন্ধীদের জন্য বিশেষ শর্ত
> দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য নিজ দেশে অনুষ্ঠিত জাতীয় অথবা আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতার বাছাই পর্বে শীর্ষ স্থানে উত্তীর্ণ হতে হবে।
> ক্বেরাত বা তেলাওয়াত বিভাগে অংশগ্রহণ করার জন্য অবশ্যই তাজবিদ, তারতিল ও তেলাওয়াতের সুর সম্পর্কে দক্ষ হতে হবে এবং তেলাওয়াতের সব নিয়ম-কানুন পালন করতে হবে।
> হিফজ বিভাগে বিচারকমণ্ডলী কর্তৃক নির্বাচিত আয়াত দ্রুত ও শুদ্ধভাবে তিলাওয়াত করতে হবে।
> দ্বিতীয় ও তৃতীয় অনুচ্ছেদের জন্য দেশের যেকোনো স্বীকৃতিপ্রাপ্ত কুরআনিক সেন্টারের সার্টিফিকেট থাকতে হবে।

যোগাযোগের ঠিকানা
ই-মেইলের মাধ্যমে যোগাযোগের ঠিকানা হলো- hosseinse@gmail.com
হোয়াটস অ্যাপের মাধ্যমে যোগাযোগের ঠিকানা হলো- ০০৯৮৯৩৫১১৮৫২৪২
টেলিফোনের মাধ্যমে যোগাযোগের ঠিকানা- ০০৯৮২১৬৬৪৫০৯৯৫ এবং
ফ্যাক্স নম্বর হলো- ০০৯৮২১৬৬৯৫৬৮৯৩।’

এমএমএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :