সুইডেনের জাতীয় নারী ফুটবলার রঞ্জা অ্যান্ডারসনের ইসলাম গ্রহণ

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৩২ পিএম, ০২ অক্টোবর ২০১৯

সুইডেনের জাতীয় নারী ফুটবলার রঞ্জা অ্যান্ডারসন ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। ইসলাম গ্রহণে অসংখ্য হুমকি ও অপমানের মুখোমুখি হয়েছেন। দেশটির একটি টিভি শো ও জাতীয় দৈনিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ তথ্য জানিয়েছেন রঞ্জা অ্যান্ডারসন। আনাদুলো এজেন্সিতেও সাক্ষাৎকারের মূল বিষয়গুলো ওঠে এসেছে।

রঞ্জা অ্যান্ডারসন সুইডেনের জাতীয় নারী ফুটবলারের অধিনায়ক এবং গোলরক্ষক। তিনি দীর্ঘ গবেষণা ও অধ্যয়নের পর পবিত্র ধর্ম ইসলাম গ্রহণের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এবং ইসলামকেই তার জন্য উপযুক্ত জীবন বিধান হিসেবে মেনে নিয়েছেন।

ইসলাম গ্রহণ করার কারণে সুইডেনের অনেকেই তাকে হুমকি দিয়েছেন এবং তার প্রতি ঘৃণা প্রকাশ করেছেন বলেও জানান তিনি। কিন্তু তারপরও তিনি নিজেকে মুসলিম হিসেবে গর্ববোধ করেন বলেও জানান।

১৫ বছর বয়স থেকেই ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে জ্ঞানার্জন করে আসছি। সে সময় তুরস্কের এক ছেলে বন্ধুর কাছে ইসলাম সম্পর্কে জানি এবং তার পরিবারের কাছ থেকেই ইসলামের প্রতি আকৃষ্ট হয়েছিলাম। তারপর থেকেই ইসলামের অনেক সৌন্দর্য অবলোকন করি এবং মসজিদে যেতে শুরু করি।

তুরস্ক ভ্রমণের সময়ই মুসলিমদের ইবাদতের স্থান মসজিদগুলো দেখে রঞ্জা অ্যান্ডারসন খুবই মুগ্ধ হয়েছিলেন। তুরস্কের বন্ধুর পরিবারের সঙ্গে থাকার সময়ই সে ইসলাম গ্রহণের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন।

ইসলাম গ্রহণের পর রঞ্জা অ্যান্ডারসন শান্তিপূর্ণ জীবন-যাপন করছেন। নিয়মিত কুরআন অধ্যয়ন করছেন এবং নামাজ আদায় করছেন। তার ভাষায়, ‘আমি ইসলাম গ্রহণ করে গর্বিত এবং আনন্দিত।’

২০১৮ সালের মে মাসে সুইডেনের আলোচিত বিষয় ছিল জাতীয় নারী ফুটবল দলের অধিনায়ক ও গোলরক্ষক রঞ্জা অ্যান্ডারসনের ইসলাম গ্রহণ।

উল্লেখ্য, পিউ রিসার্চ সেন্টারের তথ্যমতে সারা বিশ্বের জনসংখ্যা ৭৭০ কোটি। এর মধ্যে মুসলিম হলো ১৮০ কোটি, যা পৃথিবীর মোট জনসংখ্যার ২৪ শতাংশ।

এমএমএস/এমএস