বিশ্ব ইজতেমায় বিদেশি মেহমানদের অংশগ্রহণ


প্রকাশিত: ০৩:৫০ এএম, ১৪ জানুয়ারি ২০১৭

প্রতিবছরের ন্যায় এবারো টঙ্গীর তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমা শুরু হয়েছে গতকাল। অন্যান্য বছরের ন্যায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে ধর্মপ্রাণ মুসলমান এ ইজতেমা অংশগ্রহণ করে থাকে। গতকাল পর্যন্ত বিশ্বের ৭৯টি দেশ থেকে ৪ হাজার ৮০০ জন ধর্মপ্রাণ ব্যক্তি এ ইজতেমা অংশগ্রহণ করেছেন। আশা করা হচ্ছে যে আরো অনেক দেশ থেকে ধর্মপ্রাণ মুসলমানগণ ইজতেমা অংশ গ্রহণ করবেন।

গতবছর (২০১৬ সালে) অনুষ্ঠিত বিশ্ব ইজতেমায় ৮৮টি দেশের ১৮ হাজারের বেশি বিদেশি ব্যক্তিবর্গ  অংশগ্রহণ করেছিল।

বিদেশি আগতদের নিরাপত্তায় বিশ্ব ইজতেমা প্রাঙ্গণে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য বিশেষ নিরাপত্তা ও নজরদারি অব্যাহত রেখেছেন।

বিদেশিদের নিরাত্তার স্বার্থে আইন-শৃঙ্খল রক্ষাকারী বাহিনী ও ইজতেমা কমিটির পক্ষ থেকে তাদের অবাধ চলাফেরায় কিছু বিধিনিষেধ রয়েছে। তাদের জন্য তৈরি করা হয়েছে আলাদা নিরাপত্তাবেষ্টনী। ইজতেমা ময়দানের স্বেচ্ছাসেবকরাই মূলত তাদের কঠোর নিরাপত্তা নিশ্চিত করবেন।

১৯৬৭ সাল থেকে বাংলাদেশে নিয়মিত বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। শুধুমাত্র ১৯৯৬ সালে একই বছরে দুই বার বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয়েছিল। তারপর ইজতেমায় আগতদের চাপ কমাতেই ২০১১ সাল থেকে দুই পর্বে ভাগ করে ইজতেমা আয়োজনের উদ্যোগ নেয়া হয়।

তাছাড়ার গত বছর থেকে বিশ্ব ইজতেমার আদলে ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের কষ্ট ও ঝুঁকি কমাতে জেলায় জেলায় আঞ্চলিক ইজতেমা করারও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সে কারণেই দেশের ৩২টি জেলা শহরে এ জেলাভিত্তিক আঞ্চলিক ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয়।

দেশব্যাপী অনুষ্ঠিত হওয়া এ সব আঞ্চলিক ইজতেমায়ও সফরে থাকা বিদেশি মেহমানগণ উপস্থিত ছিলেন।

আগামী ১৫ জানুয়ারি প্রথম পর্বের ইজতেমা সম্পন্ন হবে এবং আগামী ২০ জানুয়ারি শুরু হয়ে ২২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মাধ্যমে বিশ্ব ইজতেমা দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমা শেষ হবে।

এমএমএস/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :