স্বপ্ন দেখার পর করণীয়

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৪৭ এএম, ১১ মে ২০১৫

কর্মব্যস্ত জীবনে মানুষ অনেক কাজ করে। মানুষ ঘুম গেলে কাজের সময়ের এসব ঘটনাগুলোর একটা প্রভাব পড়ে। এ কারণে মানুষ কিছু স্বপ্নে দেখে। আবার মানুষের মধ্যে তার কাজের ভালো-মন্দেরও একটা প্রভাব রয়েছে। তাইতো মানুষ অনেক সময় ভালো-মন্দ নানান রকম স্বপ্ন দেখে থাকে।

কাজ করতে করতে অনেক সময় মানুষ ক্লান্ত হয়ে যায়। সে সময়ও মানুষ অনেক স্বপ্ন দেখেন। আবার এমন অনেক স্বপ্ন রয়েছে যেগুলো মহান আল্লাহ তাআলার পক্ষ থেকে নিদর্শনমূলক সতর্ক ও সুসংবাদ হিসেবে দেখিয়ে থাকেন।

তাই স্বপ্ন যেমনই হোক, তা দেখার পর মানুষের রয়েছে কিছু করণীয়। ভালো স্বপ্ন দেখলে যেমন আল্লাহর প্রশংসা করতে হবে তেমনি খারাপ স্বপ্ন দেখলেও আল্লাহর সাহায্য কামনা করতে হবে। স্বপ্নের করণীয়গুলো হলো-

ভাল স্বপ্ন দেখলে যা করবেন
>> ‘আলহামদুলিল্লাহ’ পড়া।
>> স্বপ্নে প্রাপ্ত সুসংবাদ গ্রহণ করা।
>> প্রিয় ব্যক্তির কাছে বর্ণনা করা
>> যে ব্যক্তি স্বপ্ন সম্পর্কিত ভালো জ্ঞান রাখে তার কাছে স্বপ্নের কথা প্রকাশ করা
>> বেশি বেশি দান করা।

মন্দ স্বপ্ন দেখলে যা করবেন
>> ‘আউজুবিল্লাহি মিনাশ শায়ত্বানির রাঝিম’ ৩বারপড়া।
>> বাম দিকে তিন বার থু থু ফেলা
>> পার্শ্ব পরিবর্তন করে ঘুমানো
>> কারও কাছে স্বপ্নের কথা প্রকাশ না করা
>> গরিবদের দান করা।
রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ঘুমের সময় মানুষ যদি ভয় পায় তখন এ দোয়াটি পড়া। দোয়াটি পড়লে কোনো অনিষ্ট বা কুমন্ত্রণা তার ক্ষতি করতে পারবে না। আর তাহলো-

أَعُوذُ بِكَلِمَاتِ اللَّهِ التَّامَّةِ مِنْ غَضَبِهِ وَعِقَابِهِ وَشَرِّ عِبَادِهِ وَمِنْ هَمَزَاتِ الشَّيَاطِينِ وَأَنْ يَحْضُرُونِ
উচ্চারণ : ‘আউজু বিকালিমাতিল্লাহিত তাম্মাতি মিন গাদাবিহি ওয়া ইক্বাবিহি ওয়া শাররি ইবাদিহি ওয়া মিন হামাযাতিশ শায়াত্বিনি ওয়া আঁই-ইয়াহ্‌দুরুন।’ (তিরমিজি, আবু দাউদ)

অর্থ : আমি আল্লাহর পরিপূর্ণ বাক্যসমূহের মাধ্যমে তাঁর ক্রোধ ও শাস্তি হতে আশ্রয় চাই, তাঁর বান্দাদের অপকারিতা হতে, শয়তানের কুমন্ত্রণা হতে এবং তাদের উপস্থিতি হতে। (জামে আত-তিরমিজি, সুনানে আবু দাউদ)

স্বপ্ন যেমনই হোক যদি তা ভয়ংকর বা মন্দ হয় তবে এ দোয়া পড়ে আল্লাহর কাছে সাহায্য চাওয়া জরুরি।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে স্বপ্নের সব ধরনের ভয় ও অনিষ্টতা থেকে বেঁচে থাকার তাওফিক দান করুন। ভালো স্বপ্নের শুকরিয়া আদায় করার তাওফিক দান করুন এবং অন্যান্য আমলগুলো যথাযথ আদায় করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

এমএমএস/এইচএন/আরআই/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]