মনোনয়ন দৌড়ে পিছিয়ে নেই চিকিৎসকরাও

আমানউল্লাহ আমান
আমানউল্লাহ আমান আমানউল্লাহ আমান , নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩৮ পিএম, ২৭ আগস্ট ২০১৮

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে দলীয় মনোনয়ন পেতে দৌড়ঝাঁপ শুরু করেছেন বিভিন্ন দলের নেতাকর্মীরা। মূল দলের পাশাপাশি মনোনয়নপ্রত্যাশী হিসেবে নির্বাচনমুখী কর্মকাণ্ডে যুক্ত হচ্ছেন সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতীম সংগঠনের নেতারাও।

এই দৌড়ে পিছিয়ে নেই দেশের চিকিৎসক সমাজও। বিভিন্ন দল থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী প্রায় অর্ধশতাধিক চিকিৎসক রয়েছেন। আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেতে প্রায় ৩০ চিকিৎসক নির্বাচনী এলাকায় কাজ করছেন বলে জানা গেছে। তাদের মধ্যে বর্তমান সংসদে আওয়ামী লীগের প্রতীকে নির্বাচিত আটজন চিকিৎসক রয়েছেন।

সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়ার বিষয়ে চিকিৎসকদের ভাষ্য হলো, পেশাজীবীদের মধ্য থেকে জাতীয় সংসদে প্রতিনিধিত্ব করার সুযোগ হলে সংশ্লিষ্ট খাতগুলোতে আরও ভালো কাজ করা সম্ভব।

আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন চান যারা

আওয়ামী লীগের বিভিন্ন সূত্র ও চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, কুমিল্লা-৭ আসনে দলটি থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত, টাঙ্গাইল-৩ আসন থেকে বিএসএমএমইউ’র সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খান, গাজীপুরের কাপাসিয়া থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী বিএসএমএমইউ’র উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ডা. শহীদুল্লাহ সিকদার। তিনি গণতন্ত্রী পার্টির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য। রাজবাড়ি-২ আসন থেকে স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) সভাপতি ডা. এম ইকবাল আর্সেলান, ময়মনসিংহ-৪ আসন থেকে দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী স্বাচিপ মহাসচিব ডা. এম এ আজিজ।

Image-1

জানতে চাইলে বিএসএমএমইউ’র সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খান বলেন, দল যদি মনোনয়ন দেয় তাহলে অবশ্যই আমি নির্বাচন করতে চাই। পেশাজীবীদের পক্ষ থেকে কিছু আসন সংসদে গেলে এসব সেক্টরে আরও বেশি ভালো কাজ করা সম্ভব।

জামালপুর-৪ আসন থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী সাবেক সংসদ সদস্য ডা. মুরাদ হাসান। মেডিকেল কলেজে পড়ার সময় থেকে ছাত্র রাজনীতিতে যুক্ত ছিলেন তিনি। নবম জাতীয় জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে তিনি নির্বাচিত হয়েছিলেন।

ডা. মুরাদ হাসান বলেন, একজন চিকিৎসক যখন পেশাগতভাবে চিকিৎসাসেবা দিয়ে থাকেন তখন সেবার পরিধি অনেক কম থাকে। কিন্তু একজন চিকিৎসক যখন ভোটে নির্বাচিত হয়ে জনপ্রতিনিধির আসনে বসতে পারেন তখন তার সেবা করার পরিধি বেড়ে যায়।

ঢাকা-৭ আসন থেকে বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী। তিনি এ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য। কিশোরগঞ্জ-২ আসন থেকে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সাবেক মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. দীন মোহাম্মদ নুরুল হক, মুন্সিগঞ্জ-১ আসন থেকে আওয়ামী লীগের সাবেক স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. বদিউজ্জামান ভূঁইয়া ডাবলু দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী।

Image

নরসিংদী-৪ আসন থেকে স্বাচিপের সহ-সভাপতি ডা. এম এ রউফ সরদার, হবিগঞ্জ-১ আসনে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডা. মুশফিক হোসেন চৌধুরী, চট্টগ্রাম-৩ আসন থেকে বিএমএ সহ-সভাপতি ডা. জামাল উদ্দিন চৌধুরী, খুলনা-২/৩ আসন থেকে খুলনা বিভাগ বিএমএ’র সহ-সভাপতি ডা. শেখ বাহারুল আলম, বগুড়া-৭ আসন থেকে জেলা বিএমএ সভাপতি ডা. মোস্তফা আলম নান্নু আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী।

লক্ষ্মীপুর জেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক ডা. এহসানুল কবির জগলুল মনোনয়ন চান লক্ষ্মীপুর-২ আসন থেকে, নারায়ণগঞ্জ-৩ আসন থেকে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ডা. আবু জাফর বীরু, চট্টগ্রাম-৬ আসন থেকে চট্টগ্রাম বিভাগ বিএমএ’র সাধারণ সম্পাদক ডা. ফয়সাল ইকবাল চৌধুরী, চট্টগ্রাম-১৫ আসন থেকে বিএমএ’র সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. আ ম ম মিনহাজুর রহমান, রংপুর-১ আসন থেকে বিএমএ’র সহ-সভাপতি ডা. দেলোয়ার হোসেন, নরসিংদী-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ডা. আনোয়ারুল আশরাফ চৌধুরী দিলীপ দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী।

পিরোজপুর-৩ আসন থেকে তিনজন চিকিৎসক মনোনয়নপ্রত্যাশী। তারা হলেন- জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ডা. এম নজরুল ইসলাম, সাবেক সংসদ সদস্য ডা. আনোয়ার হোসেন, বর্তমান সংসদ সদস্য ডা. রুস্তম আলী ফরাজী। ডা. রুস্তম আলী ফরাজী নবম জাতীয় সংসদে স্বতন্ত্র হিসেবে নির্বাচিত হয়েছিলেন। পরে তিনি জাতীয় পার্টিতে যোগ দেন।

Image

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকে বর্তমান সংসদে আটজন চিকিৎসক সংসদ সদস্য হিসেবে নিজ নিজ এলাকার প্রতিনিধিত্ব করছেন। এর মধ্যে বর্তমান সরকারের প্রথম মেয়াদে (নবম সংসদ) স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী ডা. আ ফ ম রুহুল হক সাতক্ষীরা-৩ আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে আগামী নির্বাচনেও দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী। দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান সরকারের প্রথম মেয়াদের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ডা. দীপু মনি। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও চাঁদপুর-৩ আসন থেকে মনোনয়ন চান তিনি।

এছাড়া চট্টগ্রাম-১০ আসন থেকে ডা. আফসারুল আমিন, ঢাকা-১৯ আসনে ডা. এনামুর রহমান, সিরাজগঞ্জ-২ আসনে ডা. হাবিবে মিল্লাত মুন্না, বাগেরহাট-৪ আসনে ডা. মোজাম্মেল হোসেন, ময়মনসিংহ-১১ আসনে ডা. এম আমান উল্লাহ এবং গাইবান্ধা-৩ আসন থেকে ডা. ইউনুস আলী সরকার দলীয় প্রতীকে মনোনয়ন চান।

এইউএ/জেডএ/এমএআর/পিআর