দীর্ঘ অভিজ্ঞতাই আশরাফুলের এত ভালো খেলার কারণ

আরিফুর রহমান বাবু
আরিফুর রহমান বাবু আরিফুর রহমান বাবু , বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১০:০৫ পিএম, ০১ এপ্রিল ২০১৮

অনেকের উৎসাহ আর অনুপ্রেরণা তাকে আবার রানে ফিরিয়েছে। আজ শেষ ম্যাচে সেঞ্চুরির পর তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল।

সিনিয়র ফ্রেন্ড আশিক আর দুই বন্ধু আরিফ ও আনোয়ারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে আশরাফুল বলেন, ‘আশিক ভাই অনেক পরামর্শ দিয়েছেন। টেকনিক নিয়ে কাজও করেছেন। আর বন্ধু আরিফ আমাকে প্র্যাকটিসে অনেক সাহায্য করেছে। দিনে ৩০০ থেকে ৪০০ বল ছুঁড়ে ব্যাটিং প্র্যাকটিস করিয়েছে। এছাড়া কোচ জালাল স্যার আর ওয়াহিদ স্যার তো আছেনই। তারা সর্বক্ষণ আমাকে বুদ্ধি পরামর্শ দিয়েছেন। আর আমাদের কলাবাগানের ব্যাটিং কোচ আমার বন্ধু সাবেক ক্রিকেটার নাসিরউদ্দীন ফারুকও হেল্প করেছে। আমি সবাইকে ধন্যবাদ জানাই।’

এবারের লিগে প্রায় সব কটা সেঞ্চুরিই ভালো লাগার ইনিংস। তার মধ্যে মোহামেডানের সাথে সেঞ্চুরিটিকে বাকিগুলোর চেয়ে এগিয়ে রেখে আশরাফুল বলেন, ‘মোহামেডানের সাথে শতকটি খুব ভালো ছিল। এছাড়া সবগুলো সেঞ্চুরির পরের অংশ মানে পঞ্চাশের পর ভালো হয়েছে। আজও শেষ ৫০ করেছি ৩৭ বলে।’

এর বাইরে আশরাফুলের ধারণা, তার দীর্ঘ ক্যারিয়ারের অভিজ্ঞতাও ভালো খেলার পিছনে রেখেছে বড় ভূমিকা। আশরাফুলের ব্যাখ্যা, ‘আমার দীর্ঘ অভিজ্ঞতা অনেক কাজে দিয়েছে। খেয়াল করে দেখেন, আমার সবগুলো শতরান বিকেএসপিতে। বিকেএসপির উইকেট, মাঠ সবই আমার অনুকূল। আমি জেনে ও বুঝে গেছি উইকেট কেমন। উইকেট খুব ভালো, ব্যাটিং সহায় পিচ। টেকনিক ভালো থাকলে আর ভুল শট না খেললে আউট করা কঠিন। তা বুঝে নিজের দীর্ঘ অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে খেলার চেষ্টা করেছি। সফলও হয়েছি।’

ভালো খেলার পিছনে ফিটনেস অনেক বড়, এমন কথা জানিয়ে বন্ধু মাশরাফির প্রতি আবারও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করলেন আশরাফুল, ‘ফিটনেস অনেক বড়। মাশরাফি বলার পর থেকে ভাত ছেড়ে দিয়েছি। ওজন কমেছে তিন কেজি। আমার পেট কমে গেছে। মাঝে পেট বেড়ে যাওয়ায় কষ্ট হতো। এখন আর সমস্যা হয় না। এক মাসে পেটের মেদ কমিয়ে ফেলেছি।’

নিজের ফিটনেসের প্রতি নজর দেয়ার পর থেকেই তো ব্যাটে রানের ফলগুধারা বইছে। শেষ পাঁচ ইনিংসে চার সেঞ্চুরি আর এক হাফ সেঞ্চুরি সে সাক্ষীই দিচ্ছে।

এআরবি/এমএমআর/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :