সাকিবের অনুপস্থিতি শাপে বর হচ্ছে টাইগারদের জন্য!

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৭:২৮ পিএম, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

আঙ্গুলের ইনজুরিটা বেশ ভালোই ভোগাচ্ছে সাকিব আল হাসানকে। একই সঙ্গে ভোগাচ্ছে বাংলাদেশ দলকেও। এশিয়া কাপের সেমিফাইনালে রূপ নেয়া পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি এবং ভারতের বিপক্ষে ফাইনাল খেলতে হয়েছে বাংলাদেশকে, সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই। ইনজুরি কাটিয়ে ফিরে আসলেও, বিপিএলের ফাইনালে আবারও ইনজুরিতে পড়েছেন তিনি এবং যে কারণে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে খেলা হচ্ছে না বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডারের।

কিউইদের বিপক্ষে সব সময়ই ব্যাটে-বলে সমান পারফরমার সাকিব। তার দলে না থাকা মানে হচ্ছে বাংলাদেশ দলের জন্য বিশাল এক ক্ষতি। অথচ বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা মনে করছেন, সাকিবের না থাকাটা এক অর্থে দলের জন্য ভালোই হয়েছে। কারণ, তার অনুপস্থিতিতে অন্য কেউ সুযোগ পাবেন এবং নিজেকে প্রমাণ করার চেষ্টা করতে পারবেন।

মাশরাফি এ সময় এশিয়া কাপের ফাইনালের আগের ম্যাচ এবং ফাইনালের কথা স্মরণ করিয়ে দেন। যদিও স্বীকার করে নেন, সাকিবের না থাকাটা দলের জন্য অনেক বড় একটি দুঃসংবাদ। একই সঙ্গে নতুন কাউকে এই জায়গাটা পূরণ করার জন্য এগিয়ে আসারও বড় একটা সুযোগ হিসেবে দেখছেন বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক।

মাশরাফি বিন মর্তুজা বলেন, ‘অবশ্যই সাকিবের না থাকাটা আমাদের জন্য ভালো কোনো সংবাদ নয়। তবে তার অনুপস্থিতিতে দলে সুযোগ পাওয়াদের জন্য এটা খুব ভালো একটা সুযোগ নিজেদের প্রমাণ করার। সাকিবকে ছাড়া আমরা এশিয়া কাপের ফাইনাল খেলেছি। একই সঙ্গে আগামী সিরিজের জন্যও আমরা দলের সেরা খেলোয়াড়কে পাচ্ছি না। এটা আমাদের জন্য নতুন এক অভিজ্ঞতা।’

বিশ্বকাপের আগে সাকিবের এই অনুপস্থিতিতে নতুন কেউ নিজেকে গড়ে তোলার জন্য দারুণ এক সুযোগ পাবে বলে বিশ্বাস মাশরাফির। তিনি বলেন, ‘সাকিবের পরিবর্তে যেই সুযোগ পাক, তার জন্য নিজেকে গড়ে তোলার দারুণ এক সুযোগ এটা। সামনে বিশ্বকাপ। এ জন্য দল গঠনেও দারুণ সহায়ক হবে ব্যাপারটা।’

মাশরাফি মনে করেন, নেতিবাচক বিষয়কে একপাশে ঠেলে রেখে যদি চিন্তা করা যায়, তাহলে ইতিবাচক অনেক কিছুই বের হয়ে আসবে। সেগুলো নিয়েই নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে এই সিরিজে এগিয়ে যেতে চান তিনি।

আইএইচএস/জেআইএম