শেষ দিন পর্যন্ত থাকবে প্রিমিয়ার লিগের উত্তেজনা?

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:৪২ এএম, ২০ এপ্রিল ২০১৯

লড়াই এখন দিমুখী। চতুর্থ ও পঞ্চম রাউন্ডে যাই ঘটুক না কেন- লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ এবং আবাহনী লিমিটেডের বাইরে আর কারও শিরোপা জেতার সুযোগ ও সম্ভাবনা নেই। কারণ এ দুই দল পয়েন্ট টেবিলে বাকিদের চেয়ে অনেক ওপরে।

প্রথম পর্বে শীর্ষে থাকা লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ এখনো রয়েছে শীর্ষেই। দুই ম্যাচ বাকি থাকতে ১৪ ম্যাচে তাদের সংগ্রহ ২৪ পয়েন্ট। দুইয়ে থাকা আবাহনীর ঝুলিতে রয়েছে ২২ পয়েন্ট। তিন নম্বরে থাকা শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের পয়েন্ট ১৮ হওয়ায় শেষ দুই ম্যাচে জিতলেও শিরোপা জেতার সুযোগ তাদের নেই। সমান ১৬ পয়েন্ট প্রাইম ব্যাংক ও প্রাইম দোলেশ্বরের। ছয় নম্বরে থাকা মোহামেডানের সংগ্রহ ১২ পয়েন্ট।

ভাবা হচ্ছিলো, ২৩ এপ্রিল শেষ রাউন্ড পর্যন্ত সব আকর্ষণ ও উত্তেজনা জিইয়ে থাকবে। সে সম্ভাবনা যে একদম নেই তা নয়। তবে আগামীকাল ২১ এপ্রিল রোববারও সব শেষ হয়ে যেতে পারে। বিকেএসপিতে মোকাবেলা হবে শিরোপা দৌড়ে এগিয়ে থাকা লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ এবং নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আবাহনীর।

রূপগঞ্জ জিতলেই চ্যাম্পিয়ন। আর আবাহনী জয়ী হলে অপেক্ষায় থাকতে হবে দুই দলের শেষ ম্যাচের। নাঈম ইসলাম-শাহরিয়ার নাফীসদের রূপগঞ্জ রোববার জিতে গেলেই পেয়ে যাবে শিরোপার স্বাদ। আর তাদের হারাতে পারলে মোসাদ্দেক-মাশরাফিদের ভাগ্য খুলে যাবে। তখন শেষ ম্যাচে শেখ জামালকে হারাতে পারলে চ্যাম্পিয়ন হয়ে যাবে আবাহনী।

লিগশেষে পয়েন্ট সমান হলে প্রথমে দেখা হবে হেড টু হেড। যেখানে প্রথম পর্বে জিতে আছে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ। সুপার লিগে আবাহনীর জয় মানেই হেড টু হেডে সমান। তখন নেট রান রেটেই নিষ্পত্তি। যেখানে ঢের এগিয়ে আকাশী-হলুদরা।

তাই হিসেব দুই রকম। কাল রূপগঞ্জ জিতলে পরিষ্কার চ্যাম্পিয়ন আর আবাহনী জয়ী হলে পৌঁছে যাবে শিরোপার দোরগোড়ায়। তখন ২৩ এপ্রিল শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবকে হারাতে পারলেই লিগ ট্রফি যাবে ধানমন্ডিতে, আবাহনী ক্লাবে।

এআরবি/এসএএস/জেআইএম