নেতৃত্ব নিতে আগে থেকেই প্রস্তুত ছিলেন রশিদ খান

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৫৫ এএম, ২২ জুলাই ২০১৯

সদ্য সমাপ্ত বিশ্বকাপে আফগানিস্তানের পারফরম্যান্স ছিল সবচেয়ে বাজে। একটি ম্যাচও জিততে পারেনি তারা। বরং, এক বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি হারের লজ্জার রেকর্ডও গড়েছে তারা। অন্তর্কোন্দল আর গ্রুপিংয়ে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছিল পুরো দল। এমন পরিস্থিতিতে বিশ্বকাপের পরপরই অধিনায়ক গুলবাদিন নাইবকে সরিয়ে দায়িত্ব দেয়া হয় তরুণ ক্রিকেটার রশিদ খানকে।

মাত্র ২০ বছর বয়সেই অধিনায়ক হলেন রশিদ। যদিও এর আগে ভারপ্রাপ্ত হিসেবে অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পালন করেন তিনি। তবে, আনুষ্ঠানিকভাবে এবার নেতৃত্বের দায়িত্ব অর্পন হলো রশিদ খানের ঘাড়ে।

তিন ফরম্যাটেই অধিনায়কত্বের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে রশিদ খানকে। নেতৃত্বের দায়িত্ব নেয়ার পর জনপ্রিয় ক্রিকেট ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফোর সঙ্গে একটি সাক্ষাৎকার দেন বর্তমান সময়ে বিশ্বের অন্যতম সেরা লেগ স্পিনার রশিদ খান। সেখানেই তিনি জানিয়েছেন, আফগানিস্তান ক্রিকেট দলের নেতৃত্ব নেয়ার জন্য তিনি মানসিকভাবে প্রস্তুতই ছিলেন।

অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পেয়ে রশিদ খান নাকি খুব একটা অবাক হননি। তিনি বলেন, ‘আমি মোটেও অবাক হইনি। কারণ, আমি তো এমনিতেই সহ-অধিনায়ক ছিলাম। এটার অর্থ হচ্ছে, আপনি হচ্ছেন পরবর্তী অধিনায়ক। মানসিকভাবেও আমি এর জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত ছিলাম। তবে, এটা ঠিক নেতৃত্বটা খুব তাড়াতাড়ি চলে এসেছে। তবে জাতীয় দল কিংবা দেশের প্রশ্ন যখন আসে, তখন আপনাকে যে কোনো দায়িত্ব পালন করার জন্য খুব বেশি প্রস্তুত থাকতে হবে। নিজের সেরাটা দিয়েই চেষ্টা করবো আমি দলকে নেতৃত্ব দেয়ার।’

নতুন করে পথ চলতে চান রশিদ খান। তিনি বলেন, ‘এখন থেকেই আমাদের সঠিক পদক্ষেপগুলো নিতে হবে। আমরা বিশ্বকাপে নিজেদের অবস্থা পর্যবেক্ষণ করেছি। প্রতিপক্ষগুলোকে দেখেছি। সেভাবেই এখন আমাদের এগিয়ে যেতে হবে এবং সামনের সিরিজগুলোর জন্য সেভাবেই প্রস্তুতি নেবো।’

আইএইচএস/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :